সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

আত্মীয়ের সঙ্গে প্রণয়, সালিশি সভায় নাবালিকাকে বেদম মার, ভাইরাল হল ভিডিও

 Andhra pradesh girl beaten publicly in Village for having relation with relative
খাপ পঞ্চায়েত বসিয়ে পেটানো হচ্ছে নাবালিকাকে। ছবি: সংবাদ সংস্থা।

গোটা গ্রাম জড়ো হয়ে দেখছে। এক নাবালিকাকে বেদম পেটাচ্ছেন এক বৃদ্ধ। অভিযোগ, আত্মীয়ের সঙ্গে পালিয়েছিল ওই নাবালিকা।  অন্ধ্রপ্রদেশের অনন্তপুর জেলায় গত বৃহস্পতিবারের ওই ঘটনাটি দ্রুত ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়, উঠছে নিন্দার ঝড়।

অনন্তপুরের কেপি ধোদ্দিস গ্রামের বাসিন্দা ১৭ বছর বয়েসি ওই নাবালিকা তারই আত্মীয় সাই কিরণের (২০) সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে ছিল। দিন দশেক আগে তারা বাড়ি ছাড়ে গোপনে। বুঝিয়েসুঝিয়ে তাদের ফিরিয়ে আনা হয়। সতর্ক করে এই সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসার কথাও বলা হয় দু’জনকেই। কিন্তু, সে কথা মানতে চায়নি দু’জনের কেউই। এই সময় দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতেই খাপ পঞ্চায়েত বসানো হয়। গোটা গ্রামের সামনে বেদম মার মারা হয় ওই নাবালিকাকে। গ্রামের ৭০ বছর বয়সী বৃদ্ধ বয়া লিঙ্গাপ্পা এই ঘটনায় নেতৃত্ব দেন। বয়াকে অবশ্য এই দায়িত্ব দিয়েছিলেন এই নাবালিকার বাবা মা-ই।


দেখুন সেই ভিডিও:

 

 


আরও পড়ুন:সরকারি বিজ্ঞাপনে মোদী-শাহের পাশে কুলদীপ সেঙ্গার!
আরও পড়ুন: ফের যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন, রজৌরিতে পাক মর্টারে হত ভারতীয় সেনা জওয়ান

অনন্তপুর জেলার পুলিশ সুপার বি সত্য ইয়েসুবাবু জানিয়েছেন, এখনও পর্যন্ত ঘটনার কোনও অভিযোগ দায়ের করা হয়নি। কিন্তু ওই ভি়ডিওটির ভিত্তিতে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩২৪ ধারা অনুযায়ী অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে বয়া লিঙ্গমের বিরুদ্ধে। একইসঙ্গে, একজন নাবালিকার সঙ্গে যৌন সম্পর্ক স্থাপনের জন্যে সাই কিরণের বিরুদ্ধেও পকসো আইন অনুযায়ী অভিযোগ আনা হতে পারে।  
 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন