• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

টয় কারের চাকায় চুল জড়িয়ে খুলি উপড়ে গেল মহিলার

go-kart
এই গাড়িতেই ঘটে দুর্ঘটনা।

কিছু বুঝে ওঠার আগেই মুহূর্তের মধ্যে টয় কারের চাকায় জড়িয়ে গেল চুল। প্রাণ হারালেন বছর আঠাশের এক মহিলা। চোখের সামনে দুর্ঘটনাটি ঘটতে দেখেও কিছু করার সুযোগ পর্যন্ত পেলেন না ওই মহিলার স্বামী।

ভয়ঙ্কর এই দুর্ঘটনাটি ঘটেছে হরিয়ানার পিনজোরের একটি বিনোদন পার্ক যাদবেন্দ্র গার্ডেনস-এ। বুধবার সপরিবারে এই পার্কে বেড়াতে গিয়েছিলেন পঞ্জাবের ভাটিন্ডার বাসিন্দা বছর আঠাশের পুনিত কউর। সঙ্গে ছিলেন তাঁর স্বামী অমরদীপ সিংহ, তাঁদের বছর দুয়েকের সন্তান এবং আরও তিনজন।

পুলিশ সূত্রে খবর, পার্কে এসে ছ’ জনের জন্য মোট চারটি গো-কার্ট (একটি বিশেষ ধরনের ছোট হাইস্পিড গাড়ি যা দেখতে অনেকটা ফর্মুলা ওয়ান-এর গাড়ির মতো) ভাড়া করেন অমরদীপ। একটি গাড়িতে বসেন পুনিত ও তাঁর স্বামী। আর একটিতে তাঁদের দু’বছরের ছেলেকে নিয়ে বসেন পুনিতের শাশুড়ি। বাকিরা বাকি দুটো গাড়িতে।

আরও পড়ুন: রাস্তায় প্রকাশ্যে প্রস্রাব মন্ত্রীর! ছবি ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়

পুলিশ জানিয়েছে, প্রথম ল্যাপ (চক্কর) প্রায় শেষ হওয়ার মুখে আচমকাই পুনিতের চুল খুলে জড়িয়ে যায় গো-কার্টের চাকার সঙ্গে। মুহূর্তের মধ্যে তাঁর মাথার খুলির উপরের অংশটি উপড়ে উঠে আসে।

প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই গো-কার্ট বন্ধ করে দেওয়া হয়। কিন্তু তত ক্ষণেই যা হওয়ার হয়ে গিয়েছে। নিকটবর্তী হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে পুনিতকে মৃত বলে ঘোষণা করে দেন চিকিত্সকরা।

যাদবেন্দ্র গার্ডেনস-এর ম্যানেজার নীরজ গুপ্ত সংবাদমাধ্যমকে জানান, হরিয়ানার পর্যটন দফতর ২০১৩ সালে ১০ বছরের জন্য একটি বেসরকারি সংস্থাকে এই বিনোদন পার্কটি লিজ দেয়। সাধারণত নিরাপত্তার সমস্ত দিক এখানে খুঁটিয়ে দেখা হয়। গো-কার্টে বসা সকলেই হেলমেট পরেছেন কি না বা সিট বেল্ট লাগিয়েছেন  কি না— তা খতিয়ে দেখার জন্যও কর্মী নিযুক্ত রয়েছেন। তা সত্ত্বেও এমন দুর্ঘটনা দুর্ভাগ্যজনক।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন