• ফিরোজ ইসলাম
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বেসরকারি ট্রেন ছোটাতে কোমর বাঁধছে বিইএমএল

Indian Railways
প্রতীকী ছবি।

আইআরসিটিসি বা ইন্ডিয়ান রেলওয়ে কেটারিং অ্যান্ড টুরিজ়ম কর্পোরেশনের মাধ্যমে বেসরকারি ট্রেন চালানোর প্রক্রিয়া আগেই শুরু হয়ে গিয়েছে। আগামী বছর দুয়েকের মধ্যে আরও ১০০টি রুটে ১৫০টি বেসরকারি ট্রেন চালু করার পরিকল্পনার কথা সম্প্রতি জানিয়েছে রেল। আর বেসরকারি ট্রেনের বাজার দখলে নামীদামি দেশি-বিদেশি সংস্থার সঙ্গে পাল্লা দিতে নামছে ইস্ট-ওয়েস্ট মেট্রোর রেক নির্মাতা রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা বিইএমএল বা ভারত আর্থ মুভারস লিমিটেড। 

মুম্বই, চেন্নাই, বেঙ্গালুরু, কলকাতা ও দিল্লির মতো মেট্রো শহরে রেকের জোগান দেয় বিইএমএল। বাজারের সঙ্গে লড়েই তাদের বরাতের ৮৫ শতাংশ আদায় করছে বলে সংস্থার চেয়ারম্যান এবং ম্যানেজিং ডিরেক্টর দীপককুমার হোতার দাবি। সারা দেশে মেট্রো কোচের মোট বাজারের ৪৯ শতাংশ এখন বিইএমএলের দখলে। 

রেলের খবর, ২০১৮-১৯ আর্থিক বছরে ট্রেনের টিকিট কেটেও আসন নিশ্চিত না-হওয়ায় সারা দেশে যাতায়াতের সুযোগ থেকে বঞ্চিত হয়েছেন অন্তত আট কোটি ৮৫ লক্ষ যাত্রী। ব্যস্ত রুটগুলিতে ট্রেনে বেশি যাত্রীকে যাতায়াতের সুযোগ দিতেই বেসরকারি ট্রেন চালু করার পরিকল্পনা করেছে রেল। উদ্দেশ্য, ইউরোপীয় ধাঁচে বেসরকারি সংস্থার ছত্রচ্ছায়ায় চেয়ারকারের আদলে ১৬ কোচের ‘ট্রেন-সেট’ চালু করতে চায় তারা। ওই সব ট্রেনের রক্ষণাবেক্ষণের খরচ ও ঝামেলা কম, গতি ও স্বাচ্ছন্দ্য বেশি। 

রেলের ওই পরিকল্পনার বিষয়ে আগ্রহ দেখিয়েছে স্পেন, জার্মানি, কোরিয়া ও চিনের বিভিন্ন ট্রেন নির্মাতা সংস্থা। অ্যালস্টম, বম্বার্ডিয়র, হুন্ডাই, তালগোর মতো নামী সংস্থার সঙ্গে প্রযুক্তি ও স্বাচ্ছন্দ্যের লড়াইয়ে পাঞ্জা কষতে নামছে বিইএমএল। তাদের সিএমডি হোতা বলেন, ‘‘বেসরকারি ট্রেন নিয়ে প্রতিযোগিতায় নামার জন্য সব দিক থেকে প্রস্তুতি চালাচ্ছি আমরা।’’ সেই জন্য নিজস্ব ট্রেন তৈরি ছাড়াও রক্ষণাবেক্ষণের ব্যবস্থা তৈরির পরিকল্পনা করছে ওই সংস্থা।

দেশে সর্বপ্রথম মেট্রো চালু করার পরেও আধুনিক রেক চলাচলের দিক থেকে দীর্ঘদিন পিছিয়ে ছিল কলকাতা। ইস্ট-ওয়েস্ট মেট্রো সেই ঘাটতি পূরণ করেছে। তবে দেশের অন্যান্য মেট্রো শহরের মতো কলকাতার উত্তর-দক্ষিণ মেট্রোয় আধুনিক রেক চালু করতে প্রতিযোগিতা চান বিইএমএল-প্রধান। তাঁর মতে, প্রতিযোগিতাই উৎকর্ষ নিশ্চিত করতে পারে। উত্তর-দক্ষিণ মেট্রো নিজেকে সেই প্রতিযোগিতা থেকে সরিয়ে রাখার ফলেই পরিষেবা কিছুটা ধাক্কা খেয়েছে বলে মনে করেন বিইএমএল-কর্ণধার।

দু’টি তেজস এক্সপ্রেসের পরে রবিবার তৃতীয় বেসরকারি ট্রেন চালু করেছে আইআরসিটিসি। মহাকাল এক্সপ্রেস নামে ওই ট্রেনের পরিকল্পনা করা হয়েছে ইনদওর সংলগ্ন ওমকারেশ্বর, উজ্জয়িনীর মহাকালেশ্বর এবং কাশী বিশ্বনাথ মন্দিরের দর্শনার্থীদের কথা ভেবে। এ দিন বারাণসীতে ওই ট্রেনের যাত্রার সূচনা করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ২০ ফেব্রুয়ারি থেকে ট্রেনটি সপ্তাহে তিন দিন চলবে। বাতানুকূল থ্রি-টিয়ার কোচে মিলবে নিরামিষ খাবারও। 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন