• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘করোনায় ভয় পাবেন না’

Screening
প্রয়াগরাজে চলছে থার্মাল স্ক্রিনিং।—ছবি এপি।

করোনা-সংক্রমণের প্রথম ধাপেই আক্রান্ত হন তিনি। পরিবারের ৫ জনকে নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন আগরার অমিত কুমার। চিকিৎসার পরে সেরে ওঠে গোটা পরিবার। বিশ্বজোড়া আতঙ্কের আবহে আশ্বাস দিচ্ছেন অমিত। টুইটারে একটি ভিডিয়ো পোস্ট করে তিনি জানিয়েছেন, রোগ ধরা পড়লে আতঙ্কিত না হয়ে, না লুকিয়ে সচেতন হতে হবে। তা হলেই বিপন্মুক্তি ঘটবে।

শুরুতেই অমিত বলেছেন, "এই ভিডিয়ো কোনও টোটকা বলার জন্য বানাইনি। বানিয়েছি একটা কথাই বলতে, দয়া করে কেউ ভয় পাবেন না। কোনও সন্দেহ হলে চিকিৎসকের কাছে যান। সংক্রমণ ধরা পড়লে হাসপাতালে যান। চিকিৎসক ও সরকারকে সাহায্য করুন। ওঁরা যা বলছে শুনুন।’’ অমিতের পরামর্শ, যাঁরা করোনাভাইরাস সংক্রমণ থেকে মুক্তি দিতে পারে তাদের থেকে পালিয়ে লাভ নেই। এখন সরকার বিনামূল্যে চিকিৎসা করাচ্ছে। পরিস্থিতি আরও খারাপ হলে বেসরকারি হাসপাতালে টাকা দিয়ে চিকিৎসা করাতে হবে মানুষকে।

তিনি বলেছেন, মানুষ ভয় পাচ্ছে, কারণ এমনটা কোনও দিন হয়নি। তাঁর কথায়, ‘‘এই দেখুন আপনাদের সামনে আমি সুস্থ অবস্থায় দাঁড়িয়ে আছি। ১৪ দিন আইসোলেশনে থাকতে হয় যাতে রোগ ছড়িয়ে না পড়ে।’’ ইউরোপের অন্য দেশগুলিকে দেখে শিক্ষা নেওয়ার কথা বলেছেন অমিত। তাঁর বক্তব্য, উন্নত দেশে যদি এভাবে অতিমারি ছড়িয়ে পড়তে পারে, তবে ভারতের মতো দেশে সচেতন না হওয়ার পরিণতি আরও মারাত্মক হতে পারে।                         

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন