Cost of electricity to get increased in Bihar - Anandabazar
  • নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বিদ্যুতের দাম বাড়ছে বিহারে

Advertisement

মদ নিষেধের জেরে আয় কমেছিল সরকারের। তার উপরে নোট বাতিলের সিদ্ধান্তে আরও ধাক্কা খেয়েছে রাজস্ব আদায়। এহেন পরিস্থিতি সামালাতে বিদ্যুতের দাম ২৫ শতাংশ বাড়াতে চলেছে বিহার সরকার। রাজ্যের বিদ্যুৎমন্ত্রী বিজেন্দ্র যাদব দাম বাড়ানোর পরিকল্পনার কথা স্বীকার করে বলেন, ‘‘বিদ্যুৎ উৎপাদন ও পরিবহণের খরচ বেড়েছে। সে কারণেই দাম বাড়াতে হচ্ছে। আমরা সাধারণের উপরে আর্থিক বোঝা বাড়াতে চাই না। কিন্তু এ ছাড়া কোনও উপায় নেই।’’

মদ নিষেধের জেরে রাজস্ব ঘাটতির সঙ্গে বিষয়টিকে এক করে দেখতে রাজি নন তিনি। আগামী সপ্তাহেই বিহার রাজ্য বিদ্যুৎ রেগুলটরি অথরিটির বৈঠক। সেই বৈঠকেই দামবৃদ্ধির সিদ্ধান্তে শিলমোহর দিতে চাইছে সরকার। বিরোধী বিজেপি অবশ্য এই সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ জানিয়েছে। দলের সদ্য নিযুক্ত রাজ্য সভাপতি নিত্যানন্দ রায় বলেন, ‘‘মানুষের উপরে অতিরিক্ত বোঝা চাপানো হলে আমরা আন্দোলনে নামব। কিন্তু এই সিদ্ধান্ত মানব না।’’

চলতি বছরের ১ এপ্রিল থেকে রাজ্যে মদ নিষিদ্ধ হওয়ার ফলে প্রায় চার হাজার কোটি টাকার রাজস্ব ক্ষতি হবে বলে অনুমান ছিল বিশেষজ্ঞদের। সম্প্রতি বিধানসভায় একটি রিপোর্ট পেশ করে অর্থমন্ত্রী আব্দুল বারি সিদ্দিকি জানিয়েছেন, প্রথম দু’টি ত্রৈমাসিক পর্বে আদায়ে ১৬ শতাংশ ঘাটতি রয়েছে। উল্লেখ্য, চলতি আর্থিক বছরে রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্য ৩০ হাজার কোটি ধরা হয়েছিল। স্বাভাবিক ভাবে চিন্তিত অর্থমন্ত্রী থেকে মুখ্যমন্ত্রী। আর্থিক বছরের শেষ দু’টি ত্রৈমাসিকে সেই পরিস্থিতি সামাল দিতেই বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর সিদ্ধান্ত বলে সরকারি স্তরের ইঙ্গিত। অর্থ দফতরের এক কর্তার কথায়, মদ নিষেধের জেরে রাজ্যের রাজস্বের প্রায় ২০ শতাংশ ক্ষতি হয়েছে। কিন্তু বিকল্প আয় বাড়েনি। সব মিলিয়েই ঘোরালো পরিস্থিতি সামাল দিতে বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন
বাছাই খবর

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন