বন্ধুদের সঙ্গে নিয়ে নিজেরই প্রাক্তন স্ত্রীকে গণধর্ষণ করলেন এক ব্যক্তি। ধর্ষণ করার পর মহিলার যৌনাঙ্গে লাঠি ঢুকিয়ে করা হল নৃশংস অত্যাচার। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার আগেই মৃত্যু হয়েছে ওই মহিলার। গ্রেফতার করা হয়েছে ওই মহিলার প্রাক্তন স্বামীকে। ঘটনাটি ঝাড়খণ্ডের জামতাড়া জেলার।

বুধবার কালীপুজোর রাতে বাড়ির কাছেই নাটক দেখতে গিয়েছিলেন ওই মহিলা। তাঁর প্রাক্তন স্বামী ও তার দুই অনুচর সেখান থেকেই তাঁকে জোর করে তুলে নিয়ে যায় পাশের একটি মাঠে। গণধর্ষণ করার পর ওই মহিলার যৌনাঙ্গে লাঠি ঢুকিয়ে অত্যাচার করা হয় বলে জানিয়েছে পুলিশ।

পরের দিন সকালে চাষের জমিতে গোঙানির আওয়াজ শুনতে পেয়ে হাজির হন গ্রামবাসীরা। প্রথমে তাঁকে একটি স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখান থেকে জামতাড়া সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন।

আরও পড়ুন: ফ্লাইওভার দিয়ে ছুটছে জ্বলন্ত গাড়ি, পিছনে ছুটছে লোক, তার পর…

স্থানীয় বাসিন্দারা জানিয়েছেন, মারা যাওয়ার আগে নিজের প্রাক্তন স্বামী ও তার দুই অনুচরের নাম জানিয়েছিলেন নির্যাতিতা মহিলা। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে তাঁর প্রাক্তন স্বামীকে গ্রেফতার করেছে ঝাড়খণ্ড পুলিশ। খোঁজ চলছে আরও দুই অভিযুক্তের।

আরও পড়ুন: হায়দরাবাদের নাম বদলে ভাগ্যনগর! তেলঙ্গানাতেও নাম বদলের রাজনীতি বিজেপির

(ভারতের রাজনীতি, ভারতের অর্থনীতি- সব গুরুত্বপূর্ণ খবর জানতে আমাদের দেশ বিভাগে ক্লিক করুন।)