• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

মাকে ধর্ষণ! গুজরাতে গ্রেফতার পর্ন-আসক্ত তরুণ

representational photo
প্রতীকী ছবি।

Advertisement

মাকে ধর্ষণ করল পর্নোগ্রাফিতে আসক্ত ছেলে। মায়ের গলায় কাপড় গুঁজে দিয়ে।

গুজরাতের পাটান শহরের জল চক এলাকায়।

মায়ের অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ ২২ বছরের যুবক রোহন (নাম পরিবর্তিত)-কে শনিবার গ্রেফতার করেছে।

পুলিশ জানাচ্ছে, বৃহস্পতিবার রাত ১টা নাগাদ মা যখন তাঁর ঘরে ঘুমোচ্ছিলেন, তখনই জল খাওয়ার নাম করে তাঁর ঘরে ঢোকে রোহন। তার পর আচমকাই সে ঝাঁপিয়ে পড়ে মায়ের উপর। মা যাতে চেঁচামেচি করতে না পারেন, তার জন্য মায়ের মুখে কাপড় গুঁজে দেয় রোহন। তার পর সে মাকে ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ।

পুলিশ বলছে, রোহনের ৪৬ বছর বয়সী মা চেঁচামেচি করে লোকজন ডাকার চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু প্রায় রোজই মা-ছেলের মধ্যে চেঁচামেচি হয় বলে কেউই আর ঘর থেকে বেরিয়ে আসেননি।

আরও পড়ুন- ১২ বছরের কমবয়সি মেয়েকে ধর্ষণে ফাঁসির সাজা, সায় কেন্দ্রের​

আরও পড়ুন- ধর্ষণ: আইন অনেক হয়েছে, কিন্তু আসল ছবিটা কী?​

প্রাথমিক তদন্তে পুলিশ জানতে পেরেছে, রাতে ঘণ্টার পর ঘণ্টা মোবাইল ফোনে পর্নোগ্রাফিক ছবি দেখত রোহন। এমনকী, মা আর ২০ বছর বয়সী বোনের সামনেও পর্নোগ্রাফির ভিডিও দেখত রোহন। মহিলা পুলিশের কাছে দায়ের করা অভিযোগে জানিয়েছেন, এর আগেও রোহন তাঁকে যৌন নির্যাতনের চেষ্টা করেছিল। এই ঘটনার পর মানসিক ভাবে অবসাদগ্রস্ত হয়ে পড়েছিলেন রোহনের মা। পরে তা কাটিয়ে তিনি তাঁর স্বামীকে সব ঘটনা জানান। স্বামী পেশায় রাজমিস্ত্রি। তার পর তাঁরা আমদাবাদে থাকা বড় ছেলের সঙ্গে টেলিফোনে যোগাযোগ করেন। নিজেদের মধ্যে আলোচনার পর মহিলা লিখিত অভিযোগ করেন পুলিশের কাছে।

পাটান বি ডিভিশন পুলিশ স্টেশনের সাব-ইন্সপেক্টর আর এম রবারি বলেছেন, ‘‘রোহনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আমরা অভিযুক্ত আর তার মা, দু’জনেরই মেডিক্যাল পরীক্ষা করব। ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৭৬ এবং ৫০৪ ধারা অনুযায়ী, রোহনের বিরুদ্ধে দায়ের করা হয়েছে ধর্ষণের মামলা।’’

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন