ভোপাল-ইনদওর জাতীয় সড়ক জুড়ে ছড়িয়ে ছিটিয়ে বসে প্রায় এক ডজনের বেশি গরু। শুক্রবার এই ছবিটি টুইট করেন মধ্যপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা কংগ্রেস নেতা দিগ্বিজয় সিংহ। এর পরেই এই প্রসঙ্গে নড়েচড়ে বসলেন বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী কমল নাথ। দিগ্বিজয়ের টুইটের উত্তরে জানালেন, রাস্তাঘাটে থাকা মালিকহীন গরুদের আশ্রয়ের ব্যবস্থা করতে ২০২০-র মধ্যে কমপক্ষে তিন হাজারটি ছাউনি তৈরির লক্ষ্যমাত্রা নিয়েছে রাজ্য সরকার।

শুক্রবার যে ছবিটি দিগ্বিজয় টুইট করেছিলেন সেখানে দেখা যাচ্ছে, জাতীয় সড়ক জুড়ে ছড়িয়ে ছিটিয়ে বসে রয়েছে অনেকগুলি গরু। ছবির সঙ্গে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর টুইট, ‘‘এ ভাবেই জাতীয় সড়কের উপর গরুর অবাধ বিচরণ চলছে। প্রায় প্রতিদিনই দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছে তারা। গো-মাতা প্রেমী গো-রক্ষকেরা এখন কোথায়? মধ্যপ্রদেশ প্রশাসনের উচিত, এই মুহূর্তে সড়কের উপর থেকে এদের সরিয়ে নিয়ে গিয়ে অভয়ারণ্য কিংবা গো-শালায় রাখার ব্যবস্থা করা।’’

শুক্রবারই টুইট করে দিগ্বিজয়ের টুইটের জবাব দেন কমল নাথ। লেখেন, ‘‘আপনি ভোপাল-ইনদওর জাতীয় সড়কের উপর দুর্ঘটনার কথা সামনে এনেছেন। আমি ইতিমধ্যেই গুরুত্বপূর্ণ রাস্তার উপর গরুদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আধিকারিকদের পরিকল্পনা তৈরির নির্দেশ দিয়েছি। হাজারটি ছাউনি তৈরির কাজ এখনই চলছে। সামনের বছরের মধ্যে তিন হাজারটি ছাউনি তৈরির লক্ষ্যমাত্রা ধার্য করেছি।’’

রাস্তার উপরে গরুদের বিচরণ নিয়ন্ত্রণের আশ্বাস দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি আরও বলেন, ‘‘আমি বিষয়টি নিয়ে বিশেষ চিন্তিত। শহরাঞ্চলের পথঘাটে যাতে পশুদের অবাধ বিচরণ বন্ধ করা যায় তার জন্য একটি প্রকল্প আনার পরিকল্পনা চলছে। এটাও সত্যি, যে গরু আমাদের কাছে ধর্ম এবং গর্বের বিষয়, রাজনীতির নয়। আমরা তাদের রক্ষা করতে এমন কিছু করতে চাই যা এত বছরেও কেউ করেনি।’’