আরও বেকায়দায় বিজেপি থেকে বহিষ্কৃত বিধায়ক কুলদীপ সিংহ সেঙ্গার। তাঁর বিরুদ্ধে উন্নাও-কাণ্ডের নির্যাতিতার বাবাকে খুনের মামলা রুজু করার নির্দেশ দিল দিল্লির এক আদালত। কুলদীপ ছাড়াও ওই মামলায় তাঁর ভাই অতুল সেঙ্গার-সহ উত্তরপ্রদেশ পুলিশের তিন কর্মী ও আরও পাঁচ জনের নাম রয়েছে। পাশাপাশি, বেআইনি অস্ত্র রাখার ভুয়ো মামলায় ওই ব্যক্তিকে ফাঁসানোর অভিযোগেও সকলের বিরুদ্ধে মামলা রুজুর নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

মঙ্গলবার এই নির্দেশ দেন দিল্লির এক দায়রা আদালতের বিচারক ধর্মেশ শর্মা।

উন্নাও ধর্ষণ-কাণ্ডে গত ১৪ মাসেরও বেশি সময় জেল হেফাজতে রয়েছেন কুলদীপ সিংহ সেঙ্গার। অভিযোগ, ২০১৭-র জুনে চাকরি দেওয়ার নাম করে নিজের বাড়িতে ১৬ বছরের ওই কিশোরীকে ধর্ষণ করেন তিনি। এ নিয়ে অভিযোগ করলেও উত্তরপ্রদেশ পুলিশ ওই বিধায়কের বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ করেনি বলেও দাবি নির্যাতিতার। এর পর রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের বাড়ির সামনে গায়ে আগুন লাগিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন নির্যাতিতা ও তাঁর মা। নির্যাতিতার বাবাকে ভুয়ো মামলায় ফাঁসানোরও অভিযোগ ওঠে। গত বছরের এপ্রিলে জেল হেফাজতে থাকাকালীন রহস্যজনক ভাবে মৃত্যু হয় নির্যাতিতার বাবার। কুলদীপের ভাই অতুল সিংহই ওই ব্যক্তিকে পিটিয়ে খুন করেছে বলে অভিযোগ করে তাঁর পরিবার। এর পর চলতি বছরের জুলাইয়ে রায়বরেলীতে এক পথ দুর্ঘটনায় গুরুতর জখম হন নির্যাতিতা। সেই ঘটনাতেও অভিযোগের তির কুলদীপের দিকে। প্রবল চাপের মুখে সেই মামলা উত্তরপ্রদেশ থেকে দিল্লির আদালতে সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার নির্দেশ দেয় সুপ্রিম কোর্ট। কুলদীপের বিরুদ্ধে নির্যাতিতাকে খুন-সহ একাধিক ধারায় মামলাও রুজু করা হয়।

আরও পড়ুন: গণধর্ষণের শিকার গর্ভবতী তরুণী, আত্মঘাতী প্রেমিকই ধরিয়ে দিলেন অভিযুক্তদের

আরও পড়ুন: অসমে বাতিল নাগরিকদের তালিকা আর যাচাই নয়, এনআরসি মামলায় জানিয়ে দিল সুপ্রিম কোর্ট