অসম চুক্তির ৬ নম্বর ধারা বিলোপের দাবি জানালেন বরাকবাসীর একাংশ। ‘পিপলস ভিউ’ নামের একটি সংগঠন গড়ে জনমত গঠনে জোর দিচ্ছেন তাঁরা। তাদের কথায়, এনআরসি-র মাধ্যমে লক্ষ লক্ষ অ-অসমিয়ার নাম বাদ দেওয়া শুধু সময়ের অপেক্ষা। এর পরেও যাঁরা নাগরিকত্ব পেয়ে যাচ্ছেন, তাঁদের কী করে সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত রাখা যায়, তারই বন্দোবস্ত করা হচ্ছে অসম চুক্তির ৬ নম্বর ধারায়। 

ওই ধারায় বলা হয়েছে, অসমিয়া জনগণের সাংস্কৃতিক, সামাজিক, ভাষিক ঐতিহ্য ও পরম্পরার সুরক্ষা, সংরক্ষণ এবং বিকাশের জন্য প্রয়োজন অনুসারে সাংবিধানিক, আইনগত ও প্রশাসনিক সুরক্ষা প্রদান করা হবে। নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল প্রশ্নে একাংশ অসমিয়া সংগঠনের বিরোধ সামাল দিতে লোকসভা ভোটের আগে কেন্দ্র ৬ নম্বর ধারাকে জিইয়ে তোলে। বিপ্লবকুমার শর্মার নেতৃত্বাধীন একটি কমিটিও গঠন করে। প্রথম বৈঠকেই কমিটি কেন্দ্রের সঙ্গে আলোচনার দাবিসনদ প্রস্তুত করেছে। তা জেনেই আশঙ্কায় অ-অসমিয়া জনগোষ্ঠী। বিশেষ করে বাংলাভাষীরা। 

‘পিপলস ভিউ’-এর অভিযোগ, ওই দাবিসনদে অসমিয়াদের জন্য ১০০ শতাংশ সংরক্ষণের কথা বলা হয়েছে। নির্বাচনে লড়া, চাকরি, ভূমির অধিকার— সমস্ত কিছুতে শুধু অসমিয়ারাই সুযোগ পাবেন। অর্থাৎ অ-অসমিয়ারা শুধু বসবাস করবেন, আর কিছু নয়। তাই ৬ নম্বর ধারা, শর্মা কমিটি ও তাদের দাবিসনদ একযোগে বাতিল করার আর্জি জানিয়েছে ‘পিপলস ভিউ’।