• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ধর্ষণ করে নাবালিকার গায়ে আগুন পাকুড়ে

Representative Image

চাতরার পরে এ বার পাকুড়। ফের এক নাবালিকাকে ধর্ষণ করে গায়ে আগুন দেওয়ার ঘটনা ঘটল। তবে এ বার ওই নাবালিকা কোনও রকমে বেঁচে গিয়েছে। গুরুতর জখম অবস্থায় তাকে পাকুড়ের সীমান্তবর্তী এলাকা পশ্চিমবঙ্গের বহরমপুরের একটি নার্সিংহোমে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ সূত্রের খবর, ঘটনাটি ঘটে পাকুড়ের মফসসল থানা এলাকার কাঁকোড়বোনা গ্রামে। বছর ষোলোর মেয়েটি মামার বাড়িতে থাকত। গত কাল বিকেলে সে বাড়িতে একা ছিল। অভিযোগ, সেই সময় বচ্চন মণ্ডল নামে পরিচিত এক যুবক বাড়িতে এসে তাকে ধর্ষণ করে। মেয়েটি চিৎকার শুরু করলে তাকে শৌচালয়ে নিয়ে গিয়ে গায়ে কেরোসিন ঢেলে দেয়। এর পর আগুন লাগিয়ে দিয়ে চম্পট দেয় ওই যুবক। প্রতিবেশীরা ছুটে এসে ওই নাবালিকাকে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করেন। পরে গ্রাম লাগোয়া পশ্চিমবঙ্গের বহরমপুরে নিয়ে যাওয়া হয়। গত কাল রাত থেকে পুলিশ ওই গ্রামের বাড়ি বাড়ি তল্লাশি চালিয়ে বছর একুশের ওই যুবককে গ্রেফতার করেছে। পাকুড়ের এসপি শৈলেন্দ্রপ্রসাদ বর্ণওয়াল বলেন, “ওই মেয়েটির বয়ান অনুযায়ী এক যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে। তদন্ত চলছে।”

এ দিকে চাতরার নাবালিকা দলিতকে পুড়িয়ে মারার ঘটনায় মূল অভিযুক্ত ধানু ভুঁইয়াকে গত কাল রাতে হাজারিবাগ থেকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতার করা হয়েছে ওই গ্রামের মুখিয়াকেও।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন