• নিজস্ব সংবাদদাতা 
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

আশঙ্কার স্বাধীনতা দিবস অসমে

NRC
প্রতীকী ছবি।

Advertisement

অসমে পূর্ণাঙ্গ এনআরসি প্রকাশে ১৫ দিন বাকি। তালিকার বাইরে অনেক শিশু-কিশোর-কিশোরী ও বিবাহিত মহিলা আছেন। বিভিন্ন জেলায় খসড়াছুটরা আতঙ্কিত। রাজ্যে মোতায়েন হচ্ছে কেন্দ্রীয় বাহিনী। গ্রামে গ্রামে স্বাধীনতা দিবস উদযাপনের মধ্যেও খসড়াছুট সেই ৪১ লক্ষ মানুষ দেশহীন ও কারাবন্দি হওয়ার আশঙ্কাকে সঙ্গী করেই ৭৩তম স্বাধীনতা  দিবস কাটালেন।

আলফা-সহ উত্তর-পূর্বের বিভিন্ন জঙ্গি সংগঠন একযোগে স্বাধীনতা দিবস বয়কট করে গত রাত থেকে আজ সন্ধ্যা পর্যন্ত উত্তর-পূর্বে বন্ধ ডাকে। তবে কোনও অপ্রীতিকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়নি। অসম পুলিশের মুখ পুড়িয়ে ভারতের পতাকা পোড়ানোর ভিডিয়ো-সহ ভারতের স্বাধীনতা দিবস বর্জনের ভিডিয়ো বার্তা আপলোড করে আলফা স্বাধীন। যদিও পুলিশ একাধিক জঙ্গি, লিংকম্যানকে গ্রেফতার করে ও ভারতের পতাকা উদ্ধার করে এ ধরনের ভিডিয়ো তৈরির চেষ্টা বানচাল করে দিয়েছিল বলে দাবি করেছিল। অসমের বিশ্বনাথে ১০০ মিটার লম্বা জাতীয় পতাকা নিয়ে মিছিল বেরোয়। আজ বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি দফতর, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পতাকা তুলে নাগাল্যান্ড, মণিপুর-সহ উত্তরপূর্বের সব রাজ্যে স্বাধীনতা দিবস পালিত হয়। গত কাল রাজপ্রাসাদের মাঠে পতাকা তুলে এবং বিভিন্ন অনুষ্ঠানের মাধ্যমে পালিত হয়েছিল মণিপুরের ৭৩তম স্বাধীনতা দিবস। ১৯৪৭ সালের ১৪ অগস্ট ইংরেজরা মণিপুরের রাজার হাতে তুলে দেয় শাসনভার। তার দু’বছর পরে মণিপুর ভারতের অংশ হয়। তাই, ১৪ অগস্টের ঐতিহাসিক তাৎপর্য রয়েছে মণিপুরবাসীর কাছে।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন