পুর আধিকারিককে ব্যাট দিয়ে পেটানোয় আকাশ বিজয়বর্গীয়কে তীব্র ভর্ৎসনা করেছিলেন। এ বার সংসদে মন্ত্রীদের গরহাজিরা নিয়েও বেজায় ক্ষুব্ধ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। আজ মঙ্গলবার সন্ধের মধ্যেই অনুপস্থিত মন্ত্রীদের তালিকা চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। একই সঙ্গে সাংসদদের ‘রাজনীতির ঊর্ধ্বে উঠে’ কাজ করার কথাও বলেছেন প্রধানমন্ত্রী।

মঙ্গলবার দিল্লিতে সংসদীয় দলের সাপ্তাহিক বৈঠকে মিলিত হন প্রধানমন্ত্রী। সেখানেই মন্ত্রীদের সংসদ এড়িয়ে যাওয়া নিয়ে তীব্র উষ্মা প্রকাশ করেন বলে বৈঠকে উপস্থিতি একাধিক সূত্রে দাবি। বৈঠক সূত্রে খবর, সংসদে নির্দিষ্ট দায়িত্ব থাকা সত্ত্বেও যে সব মন্ত্রী সংসদে গরহাজির ছিলেন, মঙ্গলবার সন্ধের মধ্যে তাঁদের তালিকা চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। সূত্রের খবর, ওই তালিকা খতিয়ে দেখার পর অনুপস্থিত মন্ত্রীদের এ বিষয়ে সতর্ক করে দিতে পারেন প্রধানমন্ত্রী মোদী।

অন্য দিকে সাংসদদের প্রতিও এ দিন বৈঠকে বার্তা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। চেন্নাই-সহ গোটা দেশেই জলসঙ্কট নিয়ে উদ্বিগ্ন দেশবাসী। সেই সূত্রেই সাংসদদের প্রতি তাঁর বার্তা, নিজের নিজের এলাকায় আধিকারিকদের সঙ্গে বসে আলোচনা করে সাধারণ মানুষের সমস্যা বোঝার এবং তার প্রতিকারের চেষ্টা করুন। প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য, ‘‘সাংসদদের নিজের নিজের এলাকায় কিছু স্বতন্ত্র কাজ করতে হবে। স্থানীয় প্রশাসনের সঙ্গে আলোচনা সামাজিক কাজে অংশগ্রহণ করতে হবে।’’ সাংসদদের উজ্জীবিত করতে তাঁর বার্তা, ‘কাজকে মিশন হিসেবে নিন’। যক্ষা, টিবির মতো রোগ মোকাবিলায় ঝাঁপিয়ে পড়ুন।’’

আরও পডু়ন: কর্নাটক সঙ্কট কাটার সম্ভাবনা, বিধায়কদের ইস্তফা নিয়ে আজ সিদ্ধান্ত জানাতে পারে সুপ্রিম কোর্ট

আরও পড়ুন: পাক আকাশে ভারতীয় উড়ানে নিষেধাজ্ঞা উঠল, বালাকোট অভিযানের পর এই প্রথম

কিছু দিন আগেই কৈলাস বিজয়বর্গীয়র ছেলে ইনদওরের বিধায়ক আকাশ বিজয়বর্গীয় নিয়ে নিজের চূড়ান্ত ক্ষোভ ব্যক্ত করেন প্রধানমন্ত্রী। বলেন, কার ছেলে না দেখে এঁদের দল থেকে তাড়িয়ে দেওয়া উচিত।