মুখ্যমন্ত্রিত্ব নিয়ে নাটকে যবনিকা পড়ছেই না কর্নাটকে। ক’দিন আগে ‘বিষ গিলেছি’ বলে প্রকাশ্যে কেঁদেছিলেন কংগ্রেসের সমর্থনে গদিতে বসা কুমারস্বামী। এ বার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী সিদ্দারামাইয়া বললেন, রাজ্যবাসীর আশীর্বাদ পেলে ফের মসনদে আসবেন তিনি।

শুক্রবার কর্নাটকের হাসানে এক কর্মিসভায় সিদ্দারামাইয়া বলেন, ‘‘আমি গত নির্বাচনে হেরেছি ঠিকই, তবে আপনাদের আশীর্বাদ থাকলে ফের মুখ্যমন্ত্রী হব।’’ তাঁর দাবি, উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে রাজনীতিতে জাতপাত ও টাকাপয়সার ব্যাপার টেনে আনা হচ্ছে। একই দিনে সাংবাদিকদেরও তিনি বলেন, ‘‘আমি মুখ্যমন্ত্রী হতে চাই এবং হয়ে দেখাব। এই বিধানসভা নির্বাচনে প্রতিপক্ষরা আমার বিরুদ্ধে একজোট হয়ে বিরোধিতা করায় আমি পদটি হারাই। তবে বদল আসবেই।’’

সিদ্দারামাইয়ার এই বক্তব্যের পরেই জোরালো হয়েছে জল্পনা। কুমারস্বামীর নেতৃত্বে জোট সরকার আদৌ স্থায়ী হবে কি না, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। বিতর্ক এড়াতে কংগ্রেস হাইকম্যান্ড জানায়, কর্নাটকের জোট সরকার সম্পূর্ণ সুরক্ষিত। মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে কুমারস্বামী তাঁর মেয়াদ পূর্ণ করবেন। সিদ্দারামাইয়া প্রসঙ্গে কংগ্রেস বলে, ‘তিনি ফের মুখ্যমন্ত্রী হন তা আমরাও চাই, তবে কুমারস্বামীকে সরিয়ে তা হবে না।’ ঘটনাচক্রে, আগে সিদ্দারামাইয়া নিজেই জানিয়েছিলেন, মুখ্যমন্ত্রী পদের জন্য এই শেষ বার নির্বাচনে দাঁড়াচ্ছেন তিনি। বিতর্কে়র মুখে আজ অবশ্য সিদ্দারামাইয়া সাংবাদিকদের বলেন, ‘‘আপনারা যা ইচ্ছে ভেবে নিতে পারেন। আমি শুধু বলেছিলাম, পরের নির্বাচনে আমরাই ক্ষমতায় আসব। ’’

সিদ্দারামাইয়ার নাম না-নিয়ে আজ কুমারস্বামী বলেন, ‘‘শুনলাম সেপ্টেম্বরে নতুন সরকার তৈরি হবে। নতুন মুখ্যমন্ত্রী আসবেন। চারপাশে কী হচ্ছে তা আমি বেশ বুঝতে পারছি।’’