হোয়াটসঅ্যাপ স্বীকৃত অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার না করলে বন্ধ হয়ে যেতে পারে আপনার হোয়াটসঅ্যাপ পরিষেবা। সম্প্রতি সংস্থার তরফে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে এই সতর্কবার্তা দেওয়া হয়েছে। হোয়াটসঅ্যাপের তরফে জানানো হয়েছে, যে সকল ব্যবহারকারী হোয়াটসঅ্যাপের মূল বা স্বীকৃত ভার্সনটি ব্যবহার না করে বিভিন্ন থার্ড পার্টি অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করেন, তাঁরা যদি অফিশিয়াল হোয়াটসঅ্যাপ ভার্সান ডাউনলোড না করেন, তা হলে চিরতরে ব্লক করা হতে পারে তাঁদের অ্যাকাউন্ট।

হোয়াটসঅ্যাপের তরফে জানানো হয়েছে, বেশ কিছু ব্যবহারকারী জিবি হোয়াটসঅ্যাপ বা হোয়াটসঅ্যাপ প্লাস নামের অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করে হোয়াটসঅ্যাপ পরিষেবা চালিয়ে যাচ্ছেন। কিন্তু এদের মাধ্যমে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করা একদমই সুরক্ষিত নয়। এতে ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত তথ্য চুরি যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই ব্যবহারকারীদের সুরক্ষা নিশ্চিত করতেই হোয়াটসঅ্যাপ এই সিদ্ধান্ত নিচ্ছে বলে জানা গিয়েছে। যাঁরা এই ক্লোন অ্যাপগুলির মাধ্যমে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করছেন, আপাতত তাদের হোয়াটসঅ্যাপ থেকে ব্যান করা হবে এবং অফিসিয়াল হোয়াটসঅ্যাপ ইনস্টল করে ব্যবহার করার সুযোগ দেওয়া হবে। কিন্তু এরপরেও যদি তাঁরা ক্লোন অ্যাপগুলির মাধ্যমেই হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করতে থাকেন, তাহলে সেই সব ব্যবহারকারীকে চিরতরে ব্লক করা হতে পারে।

এই প্রসঙ্গে হোয়াটসঅ্যাপের মুখপাত্র জানিয়েছেন, তাঁরা ব্যবহারকারীদের সুরক্ষা নিশ্চিত করতে বদ্ধপরিকর এবং তার জন্য যা যা করা দরকার সবই করবেন। শুধু তাই নয়, হোয়াটসঅ্যাপের তরফে কী করে অফিশিয়াল হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড করতে হবে, সেই ব্যাপারে একটি নির্দেশিকাও প্রকাশ করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: ফেসবুকে এল ‘ডার্ক মোড’, জেনে নিন অ্যাক্টিভেট করবেন কী ভাবে

আরও পড়ুন: ভয়ঙ্কর সুনামি আসছে! সূর্যের মনের কথা জানিয়ে চমক রানাঘাটের কন্যার