• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বিনোদন

আইআইটি ছেড়ে বলিউডের নায়িকা, সেই ময়ূরী এখন কী করছেন জানেন?

শেয়ার করুন
১৭ Mayuri Kango
যখন কানপুর আইআইটি-তে উচ্চশিক্ষার সুযোগ এসেছিল, তখন তিনি ছবিতে অভিনয় করতে শুরু করেন। আবার যখন বলিউডের নায়িকা হিসেবে জনপ্রিয়তা পেলেন, তখন অভিনয়-ই ছেড়ে দিলেন। বরাবর উল্টো স্রোতে পাড়ি দিতে চেয়েছেন ময়ূরী কঙ্গো।
১৭ Mayuri Kango
রাজনীতিক ভালচন্দ্র এবং থিয়েটারকর্মী সুজাতা কঙ্গোর মেয়ে ময়ূরীর জন্ম ১৯৮২ সালের ১৫ অগস্ট। শৈশব কেটেছে মহারাষ্ট্রের ঔরঙ্গাবাদ শহরে। সেখানে সেন্ট ফ্রান্সিস দ্য সেল কলেজ এবং দেওগিরি কলেজ থেকে পড়াশোনা।
১৭ Mayuri Kango
মঞ্চে মায়ের অভিনয় দেখেই অভিনেত্রী হওয়ার ইচ্ছে একটু একটু করে জায়গা পায় ময়ূরীর মনে। স্কুলে পড়তে পড়তেই প্রথম ছবিতে অভিনয়। ত্রয়োদশী ময়ূরীকে দেখা গিয়েছিল ‘নসীম’ ছবিতে। ময়ূরীর চরিত্রের নামই ছিল ‘নসীম’। সৈয়দ আখতার মির্জা পরিচালিত এই ছবি সমালোচকদের প্রশংসা পেয়েছিল।
১৭ Mayuri Kango
এর পরেও সে সময় অভিনেত্রী হওয়ার ইচ্ছে ছিল না তাঁর। বরং ভেবেছিলেন মন দিয়ে পড়াশোনাই করে যাবেন। কিন্তু ফেলতে পারলেন না মহেশ ভট্টের অনুরোধ। যুগল হংসরাজের বিপরীতে অভিনয় করলেন ‘পাপা কহতে হ্যায়’ ছবিতে।
১৭ Mayuri Kango
বক্স অফিসে এই ছবি সফল হয়নি। কিন্তু জনপ্রিয় হয়েছিল ছবির গান। দর্শকদের ভাল লেগেছিল ময়ূরীকেও। সবুজ চোখের মণি নিয়ে তিনি লুকের দিক দিয়ে ছিলেন সমসাময়িক নায়িকাদের থেকে অন্যরকম।
১৭ Mayuri Kango
এরপর আইআইটি কানপুরে ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ার সুযোগ পেয়েছিলেন ময়ূরী। কিন্তু ময়ূরী সিদ্ধান্ত নেন তিনি অভিনেত্রী হবেন। পড়াশোনা এবং অভিনয় একসঙ্গে চালিয়ে নিয়ে যেতে কলাবিভাগে স্নাতক হতে ভর্তি হন কলেজে। কিন্তু প্রথম থেকেই অনিয়মিত ছিলেন কলেজে। কিন্তু ক্রমশ ব্যস্ততা বেড়ে যাওয়ায় কলেজ যাওয়া ছেড়ে দেন ময়ূরী।
১৭ Mayuri Kango
‘বেতাবি’, ‘হোগি প্যায়ার কে জিত’, ‘বাদল’, ‘শিকারি’-সহ বেশ কিছু ছবিতে অভিনয় করেন ময়ূরী। তাঁর শেষ ছবি ‘কুরবান’ মুক্তি পেয়েছিল ২০০৯-এ।
১৭ Mayuri Kango
সিনেমার পাশাপাশি কাজ করেছেন ছোট পর্দাতেও। ‘ক্যয়া হদসা ক্যয়া হকীকত’, ‘করিশ্মা’, ‘কুসুম’, ‘কিটি পার্টি’, ‘রঙ্গোলি’, ‘কহিঁ কিসি রোজ’-এর মতো জনপ্রিয় সিরিয়ালের অন্যতম মুখ ছিলেন ময়ূরী। তিনি অভিনয় করেছেন মঞ্চেও।
১৭ Mayuri Kango
কিন্তু ধীরে ধীরে তিনি নিজেকে অভিনয় থেকে সরিয়ে নিচ্ছিলেন। ২০০৯-এর পরে তাঁকে আর পর্দায় দেখা যায়নি। হঠাৎ করে অভিনয় ছেড়ে দেওয়ার কারণ হিসেবে ময়ূরী বলেছিলেন, তাঁর মনে হয় বলিউডে অভিনেত্রী হিসেবে দশ বছর যথেষ্ট সময়।
১০১৭ Mayuri Kango
দশ বছর পরে নতুন মুখ এসে সরিয়ে দেয় পুরনো অভিনেত্রীদের। সেই পরিস্থিতি এড়িয়ে যাওয়ার জন্য নিজের থেকেই ইন্ডাস্ট্রি ছেড়ে চলে যান তিনি।
১১১৭ Mayuri Kango
২০০৩ সালের ডিসেম্বরে ময়ূরী বিয়ে করেন আমেরিকাবাসী অদিত্য ধিলোঁকে। বিবাহসূত্রে আমেরিকাতেই থাকতে শুরু করেন ময়ূরী। বিয়ের পরেও প্রথম দিকে বলিউডে এসে কিছু কিছু কাজ করেছিলেন তিনি। কিন্তু ক্রমে বলিউডকে বিদায় জানান।
১২১৭ Mayuri Kango
যে অভিনয়ের জন্য একদিন উচ্চশিক্ষায় ইতি টেনেছিলেন, অভিনয় ছেড়ে সেই লেখাপড়ার কাছে আবার ফিরে গেলেন ময়ূরী। নিউ ইয়র্কে মার্কেটিং অ্যান্ড ফিনান্সে এমবিএ কোর্স করলেন তিনি।
১৩১৭ Mayuri Kango
এরপর ময়ূরীর কর্পোরেট চাকুরে জীবন শুরু হয়। ‘ডিজিটাস’, ‘জেনিথ’, ‘পারফরমিকস’-সহ একাধিক বহুজাতিক সংস্থায় উচ্চপদস্থ কর্মী ছিলেন ময়ূরী।
১৪১৭ Mayuri Kango
ছেলে কিয়ানের জন্মের পরে ভারতে ফিরে আসেন ময়ূরী। এখন তিনি গুরুগ্রামে থাকেন। তাঁর কর্পোরেট চাকুরের জীবন কিন্তু চলছেই। অতীতের অভিনেত্রী ময়ূরী এখন গুগল-এর পদস্থ কর্মী।
১৫১৭ Mayuri Kango
গুগল-এর ইন্ডাস্ট্রি-এজেন্সি পার্টনারশিপের প্রধান হিসেবে এখন কর্মরত ময়ূরী। এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, তাঁর জীবনে নতুন ইনিংস খুব একটা সহজ ছিল না। কারণ ক্লায়েন্টরা ধরেই নিতেন অভিনেত্রী মানে তিনি সৌন্দর্য-সর্বস্ব।
১৬১৭ Mayuri Kango
তিল তিল করে ক্লায়েন্টদের কাছে নিজের দক্ষতাকে বিশ্বাসযোগ্য করে তুলেছেন ময়ূরী। এখন তিনি সফল কর্পোরেট চাকুরে। চাকরির পাশাপাশি ময়ূরীর জীবনের বড় অংশ জুড়ে আছে তাঁর ছেলে এবং ঘরকন্না।
১৭১৭ Mayuri Kango
জীবনের কোনও সিদ্ধান্ত নিয়েই আক্ষেপ নেই। ময়ূরী ফিরতে চান না অভিনয়েও। জীবন যে ভাবে এসেছে, নিজের শর্তেই তাঁকে স্বাগত জানিয়েছেন নব্বইয়ের দশকের প্রতিশ্রুতিমান এই নায়িকা।

Advertisement

Advertisement

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
বাছাই খবর
আরও পড়ুন