• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বিনোদন

টিভি শো থেকে বার করে দেওয়া হয়েছিল এই তারকাদের! কেন জানেন?

শেয়ার করুন
TV Actors
এই তারকারা টেলিভিশনের জনপ্রিয় মুখ। টিভি ইন্ডাস্ট্রিতে বেশ রমরমা এঁদের পসার। কিন্তু, কারও মেজাজ গরম, তো কেউ একেবারেই নিয়ম মেনে চলেন না। নানা কারণে একাধিক সময় টিভি ধারাবাবিক বা রিয়্যালিটি শো থেকে বাদ পড়েছিলেন এই তারকারা। এক ঝলকে দেখে নিন কেন বাদ দেওয়া হয়েছিল ছোট পর্দার এই জনপ্রিয় অভিনেতাদের।
Giaa Manek
জিয়া মানেক: ‘সাথ নিভানা সাথিয়া’ সিরিয়ালের প্রথম ‘গোপী বহু’ ওরফে জিয়া তাঁর অভিনয় দিয়ে দর্শকদের মন জিতে নিয়েছিলেন। কিন্তু, ধারাবাহিকের মাঝপথেই জিয়ার বদলে দেবলীনা ভট্টাচার্যকে গোপীর ভূমিকায় দেখা যায়। জিয়া জানিয়েছেন, অন্য একটি রিয়্যালিটি শো-এর জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন তিনি। সেটাই পছন্দ হয়নি প্রযোজকের। তাই বার করে দেওয়া তাঁকে।
Karan Singh Grover
কর্ণ সিংহ গ্রোভার: রুক্ষ মেজাজের জন্য বেশ ‘নাম’ রয়েছে কর্ণের। এই স্বভাবের জন্যই জি টিভির জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘কবুল হ্যায়’-এর মুখ্য চরিত্র থেকে বাদ পড়েন কর্ণ। ধারাবাহিকটির প্রযোজক এবং টিম মেম্বারদের অভিযোগ ছিল, কর্ণ নিজের মর্জির মালিক। কাউকে বিশেষ পাত্তা দিতেন না। সেটেও আসতেন দেরি করে।
Sehban Azim
শেহবান আজিম: ‘সিলসিলা প্যার কা’ সিরিয়ালের বেশ জনপ্রিয় মুখ শেহবান। তা ছাড়া ‘দিল মিল গ্যায়ে’, ‘হামসফর’ টিভি শো-তেও দেখা গিয়েছে তাঁকে। তবে, সিলসিলা ধারাবাহিকের মাঝপথেই বাদ পড়েন শেহবান। কেন তাঁকে বহিষ্কার করা হয়েছিল সেই বিষয়ে কিছু জানাননি শেহবান। সিরিয়ালের পরিচালকও এই বিষয়ে মুখ খোলেননি।
Navneet Nishan
নভনীত নিশান: টেলি ধারাবাহিক ছাড়াও একাধিক বলি ছবিতেও বেশ চেনা মুখ নভনীত। অভিনয় করেছেন অসংখ্য পঞ্জাবী ছবিতে। ২০১৩ সালের জনপ্রিয় সিরিয়াল ‘মধুবালা’ থেকে বাদ দেওয়া হয়েছিল নভনীতকে। পরিচালক জানিয়েছিলেন, শুটিংয়ের রুটিন ঠিক মতো মানতেন না নভনীত। ফলে টিমের বাকি সদস্যদেরও তাঁর সঙ্গে কাজ করতে অসুবিধা হত।
Vibhav Roy
বৈভব রায়: পরিচালক-প্রযোজকদের অভিযোগ ছিল, তাঁর স্ক্রিন প্রেজেন্স নাকি একেবারেই ভাল নয়। অভিনয়ও দাগ কাটেনি দর্শকদের মনে। ফলে ধারাবাহিকের টিআরপি অনেক পড়ে যায়। এই সব কারণে ‘কুছ তো হ্যায় তেরে মেরে দারমিয়া’ সিরিয়ালের মুখ্য চরিত্র থেকে বাদ দেওয়া হয় বৈভবকে।
Drashti Dhami
দ্রাস্টি ধ্রামি: টিভি সিরিয়ালে এই অভিনেত্রীর জনপ্রিয়তা তুঙ্গে। মিষ্টি, শান্ত স্বভাবের দ্রাস্টিও বাদ পড়েছিলেন ‘ঝলক দিখলা জা’ টিভি শো থেকে। সেই জায়গা দখল করেছিলেন মণীশ পল। শো-এর পরিচালকের দাবি ছিল, বিপুল সংখ্যক দর্শকদের উৎসাহিত করতে পারছিলেন না দ্রাস্টি। রিয়্যালিটি শো-এর জন্য যেটা জরুরি।

Advertisement

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন
বাছাই খবর
আরও পড়ুন