• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বিনোদন

লাগাতার হুমকি ফোন, ভাড়াটে খুনি নিয়োগ, অবসাদে আত্মহত্যার কথা ভেবেছিলেন উদিত নারায়ণও

শেয়ার করুন
১২ 1
শ্রোতাদের কাছে যত ভালবাসা পেয়েছেন, ততটাই বিরোধিতার মুখে পড়েছেন ইন্ডাস্ট্রিতে। বলিউডে চার দশক পেরনো উদিত নারায়ণের অভিজ্ঞতা এতটাই তিক্ত। মোটা অঙ্কের টাকা দাবি করা থেকে প্রাণনাশের হুমকি। সবকিছুরই মুখোমুখি হতে হয়েছে তাঁকে। বলছেন নব্বইয়ের দশকের অন্যতম জনপ্রিয় এই নেপথ্যগায়ক।
১২ 2
বলিউডে উদিত প্রথম গান করেছিলেন ১৯৮০ সালে। ‘উনিশ বিশ’ নামে একটি ছবিতে তিনি পারফর্ম করেছিলেন মহম্মদ রফির সঙ্গে। ধীরে ধীরে ইন্ডাস্ট্রিতে নিজের জায়গা করে নেন তিনি।
১২ 3
১৯৮৮ সালে মুক্তি পায় ‘কেয়ামত সে কেয়ামত তক’। এই ছবিতে আমির খানের লিপে উদিত নারায়ণের ‘পাপা কহতে হ্যায়’ সুপারহিট হয়। এর পরে তাঁকে আর পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি।
১২ 4
সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে উদিত বলেছেন, ১৯৯৮ সালে ‘কুছ কুছ হোতা হ্যায়’ সুপারহিট হওয়ার পরে তাঁর জীবন সমস্যায় জর্জরিত হয়ে ওঠে।
১২ 5
শিল্পীর অভিযোগ, এর পরই তাঁর কাছে মোটা অঙ্কের টাকা দাবি করে আন্ডারওয়ার্ল্ড থেকে হুমকি-ফোন আসতে থাকে।
১২ 6
এখানেই শেষ নয়। উদিতের আরও দাবি, তাঁকে বলা হয় বলিউড ছেড়ে চলে যেতে। এমনকি, তাঁকে খুন করার জন্য ভাড়াটে খুনিও নিয়োগ করা হয় বলে তাঁর অভিযোগ।
১২ 7
বাধ্য হয়ে পুলিশের শরণাপন্ন হন উদিত। ১৯৯৮ থেকে ২০০২ অবধি তাঁর ছায়াসঙ্গী ছিলেন দুই সশস্ত্র পুলিশকর্মী।
১২ 8
এক বার দুই দুষ্কৃতী ধরা পড়ে যায় ওই দুই পুলিশকর্মীর কাছে। উদিত জানিয়েছেন ধৃতদের কাছে থেকে একটি ছুরি উদ্ধার হয়। উদিতের অভিযোগ, তাঁকে খুন করার জন্য লখনউ থেকে এসেছিল ওই দুই ভাড়াটে খুনি। কিন্তু পুলিশকর্মীদের তৎপরতায় তাদের পরিকল্পনা ভেস্তে যায়।
১২ 9
উদিত নারায়ণের আরও বক্তব্য, পুলিশি তদন্তে জানা যায়, বলিউডের একটি মিউজিক কোম্পানি তাঁর সাফল্য মেনে নিতে পারেনি। উদিতের জন্য ওই সংস্থা নাকি অস্তিত্ব সঙ্কটে ভুগত। ফলে তারাই নাকি উদিতকে বার বার বিপদে ফেলার ষড়যন্ত্র করতে থাকে বলে দাবি এই জনপ্রিয় গায়কের।
১০১২ 10
১৯৯৮ থেকে ২০১৯ অবধি এই আতঙ্ক তাঁকে পিছু করে এসেছে বলে জানিয়েছেন উদিত। কিন্তু ভয় না পেয়ে কাজকে ভালবেসে মাটি কামড়ে পড়ে থেকেছেন তিনি। কিন্তু তাঁকে কাজ করতে হয়েছে আতঙ্কিত হয়েই।
১১১২ 11
লাগাতার আতঙ্কের সঙ্গে থাকতে থাকতে তিনি নাকি অবসাদগ্রস্ত হয়ে আত্মহত্যার কথাও ভেবেছিলেন। ২০১১ সালে নাকি এক বার তাঁর কাছে হুমকি ফোন আসে। সেখানে বলা হয়, তাঁকে খুন করতে দুই দুষ্কৃতী রওনা দিয়েছে!
১২১২ 12
সেই ষড়যন্ত্রও ভেস্তে যায়। পুলিশের হাতে ধরা পড়ে দুই দুষ্কৃতী। এই অভিজ্ঞতাও জানিয়েছেন উদিত। বলেছেন, এ ভাবেই কার্যত শিয়রে শমন নিয়ে ইন্ডাস্ট্রিতে রয়েছেন তিনি। দাবি বলিউডের তারকা-শিল্পী উদিত নারায়ণের।

Advertisement

Advertisement

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
বাছাই খবর
আরও পড়ুন