হার দিয়ে কোপা আমেরিকায় অভিযান শুরু করেও শেষ আটে পৌঁছেছে আর্জেন্টিনা। শুক্রবার রিয়ো দে জেনেইরোর বিখ্যাত মারাকানা স্টেডিয়ামে কোয়ার্টার ফাইনালে সের্খিয়ো আগুয়েরোদের প্রতিপক্ষ ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে বাইশ ধাপ পিছিয়ে থাকা ভেনেজ়ুয়েলা। তিন বছর আগে যাদের ৪-১ চূর্ণ করেই সেমিফাইনালে উঠেছিল আর্জেন্টিনা। তা সত্ত্বেও স্বস্তি নেই আর্জেন্টাইন সমর্থকদের মধ্যে।

প্রথম কারণ অবশ্যই লিয়োনেল মেসির ছন্দে না থাকা। এই প্রতিযোগিতায় বার্সেলোনা তারকা এখনও পর্যন্ত তিন ম্যাচে মাত্র একটি গোল করেছেন। তাও আবার প্যারাগুয়ের বিরুদ্ধে পেনাল্টি থেকে। দ্বিতীয়ত মাস তিনেক আগে ফিফা ফ্রেন্ডলিতে এই ভেনেজ়ুয়েলার বিরুদ্ধেই ১-৩ হেরেছিল আর্জেন্টিনা। সেই ম্যাচে মেসিকে কার্যত খেলতেই দেননি ভেনেজ়ুয়েলার ফুটবলারেরা। শুক্রবারও আর্জেন্টিনা অধিনায়ককে আটকানোই প্রধান লক্ষ্য তাঁদের। ম্যাচের চব্বিশ ঘণ্টা আগে ভেনেজ়ুয়েলার কোচ রাফায়েল দুদামেল বলেছেন, ‘‘দেশের হয়ে ট্রফি না জিতলেও ফুটবলের ইতিহাসে সর্বকালের অন্যতম সেরা ফুটবলার মেসি। প্রতিপক্ষের ফুটবলারেরাও উজ্জীবিত থাকে ওর বিরুদ্ধে খেলার সময়।’’ এর পরেই তিনি যোগ করেছেন, ‘‘তবে এই মুহূর্তে আমাদের একমাত্র লক্ষ্য আর্জেন্টিনাকে হারিয়ে শেষ চারে যোগ্যতা অর্জন করা। তাই মেসিকে খেলতে দেওয়ার ভুল করা চলবে না।’’

ভেনেজ়ুয়েলার রণকৌশল ব্যর্থ করতে দলে বেশ কিছু পরিবর্তনের ইঙ্গিত দিয়েছেন আর্জেন্টিনা কোচ লিয়োনেল স্কালোনি। সংবাদমাধ্যমের দাবি, কাতারের বিরুদ্ধে গ্রুপ লিগের ম্যাচে খুয়ান ফোইথ খেলেছিলেন স্টপার হিসেবে। ২১ বছর বয়সি ডিফেন্ডারকে শুক্রবার রাইটব্যাক পোজিশনে খেলানোর কথা ভাবছেন তিনি। আর এক ডিফেন্ডার রেনসো সারাভিয়ার পরিবর্তে জার্মান পেসেল্লাকে শুরু থেকে খেলাতে পারেন। এ ছাড়া জিয়োভান্নি লো সেলসোর জায়গায় প্রথম দলে ঢুকতে পারেন মার্কোস আকুনা। তবে খেলার ছক অবশ্য বদলানোর পক্ষপাতী নন স্কালোনি। অনুশীলনে মেসি, আগুয়েরো ও মার্তিনেসকে সামনে রেখে ৪-৩-৩ ফর্মেশনেই ম্যাচ প্র্যাক্টিস করান তিনি।