• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ভেন্যু লাহৌর, পিএসএল ফাইনাল বয়কট ইংল্যান্ড প্লেয়ারদের

Lahore stadium
পিএসএল ফাইনালের জন্য তৈরি হচ্ছে লাহৌরের গদ্দাফি স্টেডিয়াম। ছবি: এএফপি।

এর আগে বাংলাদেশে খেলতে যেতে নারাজ ছিলেন ইংল্যান্ডের ক্রিকেটাররা। এ বার বেঁকে বসলেন লাহৌরে খেলতে যাওয়া নিয়ে। পাকিস্তান ক্রিকেট লিগের ফাইনালে লাহৌরে খেলতে যাবেন না কোনও ইংল্যান্ড প্লেয়ার বলে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে ইতিমধ্যেই। লাহৌরে খেলতে গেলে বাড়তি টাকা দেওয়ার লোভও দেখানো হয়েছে। কিন্তু নিরাপত্তার কারণ দেখিয়ে সেখানে খেলতে যাচ্ছেন না কেউই। এই তালিকায় রয়েছেন কেভিন পিটারসন, তেমাল মিলসও। যাঁরা এই অফার ফিরিয়ে দিয়েছেন। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের আসল লক্ষ্য ছিল লাহৌরে পিএসএল-এর ফাইনাল খেলিয়ে ক্রিকেট বিশ্বকে প্রমাণ করা পাকিস্তান খেলার জন্য নিরাপদ। কিন্তু সেই প্রচেষ্টায় উল্টো প্রভাব হতে শুরু করেছে। বোনাস হিসেবে লাহৌরে খেলার জন্য ১০ থেকে ৫০ হাজার ডলার পর্যন্ত দেওয়ার কথা বলা হয়েছিল।

আরও খবর: টুইটারে ট্রোলের জবাব দিলেন লোকেশ

পিএলএল ফাইনাল ঘিরে এখন থেকেই নিরাপত্তার ঘেরাটোপে চলে গিয়েছে স্টেডিয়াম চত্তর।

পিএসএল ফাইনালে ওঠা কোয়েত্তা গ্ল্যাডিয়েটরস ফ্র্যাঞ্চাইজির হয়ে খেলেন ইংল্যান্ডের তিনজন। পিটারসন ইতিমধ্যেই ফিরে গিয়েছে লন্ডনে। সেখানে গিয়েই তিনি টুইটে তাঁর বক্তব্য জানিয়েছেন। এ ছাড়া কোয়েত্তার বিরুদ্ধে খেলতে যে দল ফাইনালে উঠবে সেই দলের বিদেশিরাও লাহৌরে খেলতে চাইবেন না বলেই মনে করা হচ্ছে। বিশেষ সূত্রের খবর, ক্রিস গেইল, কেরন পোলার্ড, কুমার সঙ্গাকারা ও মাহেলা জয়বর্ধনে রয়েছেন করাচি কিংসে। অন্যদিকে, ডেভিড মালান ও ক্রিস জর্ডন খেলেন পেশোয়ার জালমির হয়ে এবং ডোয়েন স্মিথ, স্যামুয়েল বদ্রী, ব্র্যাড হাডিন, শ্যেন ওয়াটসন ও বেন স্টোকস খেলছেন ইসলামাবাদ ইউনাইটেডের হয়ে। এঁরা সকলেই সরাসরি না বললেও বুঝিয়ে দিয়েছেন লাহৌরে খেলতে যাওয়ার ঝুঁকি তাঁরা নেবেন না। সব ফ্র্যাঞ্চাইজির মালিকরাই চেষ্টা চালাচ্ছেন যাতে তাঁদের বিদেশি প্লেয়াররা লাহৌর যেতে সম্মত হন।

পিএসএল চেয়ারম্যান নাজম শেঠি অবশ্য বিকল্প ভাবনা-চিন্তা করে রেখেছেন। যদি একান্তই নামী বিদেশিরা খেলতে না চান তা হলে কম নামী বা অবসরপ্রাপ্ত বিদেশিদের নিয়েই হবে পিএসএল ফাইনাল। শুধু ক্রিকেটাররাই নন বিদেশি ধারাভাষ্যকাররাও লাহৌরে যেতে নারাজ। এই কারণে পিছিয়ে গিয়েছে টেলিকাস্ট চ্যানেলও।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন