• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

টোকিয়ো-যাত্রা নিশ্চিত রানির দুরন্ত গোলেই

Hockey
স্বপ্নপূরণ: চলো টোকিয়ো। অলিম্পিক্সের মূলপর্বে উঠে রানিরা। পিটিআই

Advertisement

টোকিয়ো অলিম্পিক্সের মূল পর্বে খেলার যোগ্যতা অর্জন করল ভারতীয় মহিলা হকি দল।

শুক্রবার মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে প্রথম পর্বের ম্যাচে ৫-১ হারিয়েছিল ভারতের মেয়েরা। ফলে আশা করা গিয়েছিল, শনিবার অনায়াসেই অলিম্পিক্সের মূলপর্বের ছাড়পত্র পেয়ে যাবে রানি রামপালের দল। কিন্তু তা হয়নি। বরং এ দিন অপ্রত্যাশিত পারফরম্যান্স দেখিয়ে ভারতকে ৪-১ হারাল মার্কিনরা। কিন্তু দুই ম্যাচের ফল মিলিয়ে ভারত ৬-৫ এগিয়ে থাকায় শেষ পর্যন্ত হাসি মুখেই মাঠ ছাড়েন গুরজিৎ কৌররা। খেলার ৪৮ মিনিটে গোল করে ভারতকে অলিম্পিক্স হকির মূলপর্বে খেলার সুযোগ করে দেন দলের অধিনায়ক রানি রামপাল। যিনি প্রথম ম্যাচেও সেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার পেয়েছিলেন।  

১৯৮০ সালে মস্কো অলিম্পিক্সে অংশ নেওয়ার পরে আটটি অলিম্পিক্সে যোগ্যতা অর্জন করতে পারেনি ভারতীয় মহিলা হকি দল। ৩৬ বছর পরে চার বছর আগে রিয়ো অলিম্পিক্সে বাছাই পর্ব টপকে অলিম্পিক্সের মূলপর্বে গিয়েছিলেন ভারতের মেয়েরা। সেই ধারাবাহিকতা বজায় রেখে ফের টোকিয়োতেও দেখা যাবে ভারতের মহিলা হকি দলকে।

আরও পড়ুন: অস্ত্র তুলে নিতে শুরু করেছে স্থানীয়রা, জঙ্গি দলে যোগ বাড়ছে, কাশ্মীরে উদ্বিগ্ন প্রশাসন

প্রথম ম্যাচে ১-৫ ফলে পিছিয়ে থাকায় এ দিন প্রথম থেকেই উজ্জীবিত মানসিকতা নিয়ে ভারতের রক্ষণে ঝাঁপিয়ে পড়ে মার্কিনরা। পঞ্চম মিনিটেই পেনাল্টি কর্নার থেকে গোল করে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে এগিয়ে দেন আমান্ডা মাগাদান। প্রথম কোয়ার্টারের শেষ মিনিটে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হয়ে ব্যবধান বাড়ান তাদের অধিনায়ক ক্যাথলিন শার্কে। দ্বিতীয় কোয়ার্টার শুরুর পাঁচ মিনিট পরেই ২০ মিনিটে ফের ব্যবধান বাড়ান অ্যালিসা পার্কার। এই কোয়ার্টারেই ৪-০ করেন আমান্ডা। এই সময়ে একাধিক ভুল করছিল ভারতীয় রক্ষণ। বিরতিতে ম্যাচের ফল ছিল ৪-০। দুই ম্যাচ মিলিয়ে ফলও হয়ে গিয়েছিল ৫-৫। তৃতীয় কোয়ার্টারে অবশ্য ভারতের মেয়েরা একাধিক সুযোগ তৈরি করলেও গোল করতে পারেননি। তৃতীয় কোয়ার্টারেও ফল পরিবর্তন হয়নি। 

চতুর্থ কোয়ার্টারে ভারতীয় মহিলা দলের কোচ সোর্দ মারিন রক্ষণ পোক্ত করে প্রতি-আক্রমণে জোর দেন। এই রণনীতিতেই কাজ হয়। চাপ বাড়তে থাকে মার্কিন রক্ষণে। ৪৮ মিনিটে ‘ডি’-এর মধ্যে বল পেয়ে চকিতে ঘুরে জোরালো শটে গোল করে ব্যবধান কমান ভারতের অধিনায়ক রানি। একই সঙ্গে মোট ফলে ৬-৫ এগিয়ে যায় ভারত। শেষ পর্যন্ত এই ফল বজায় থাকায় টোকিয়োর ছাড়পত্র পেয়ে যায় রানি রামপালের দল। রুদ্ধশ্বাস এই ম্যাচের পরে স্টেডিয়ামে হাজির দর্শকেরাও উঠে দাঁড়িয়ে অভিবাদন জানান মহিলা দলকে। 

আরও পড়ুন: শৃঙ্খলার ছটে দূষণ থেকে রক্ষা সুভাষ সরোবরের

ভারত অধিনায়ক রানি রামপাল বলেন, ‘‘প্রথম ম্যাচে বড় ব্যবধানে জেতায় কিছুটা আত্মতুষ্টি এসেছিল। এ ছাড়াও পেনাল্টি কর্নার ঠিক মতো নিতে পারিনি। ভুল পাসও হচ্ছিল। সেই সুযোগেই ওরা জাঁকিয়ে বসেছিল। বাছাই পর্ব টপকানো গিয়েছে শেষ পর্যন্ত। এ বার অলিম্পিক্সের প্রস্তুতি শুরু হবে।’’ 

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন