• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

গল্ফ-বিতর্ক

বকেয়া নিয়ে আসরে ক্রীড়ামন্ত্রী

Shiv Chawrasia

Advertisement

রিও অলিম্পিক্সে ভারতের প্রতিনিধিত্ব করা দুই সেরা গল্ফারের বকেয়া নিয়ে বিবাদে এ বার জড়ালেন কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী বিজয় গোয়েল। এ দিন নয়াদিল্লিতে মন্ত্রী বলেন, ‘‘আমাদের তরফে কোনও খেলোয়াড়ের কোনও বিল বকেয়া নেই। গল্ফারদের ক্ষেত্রে কোথাও একটা যোগাযোগের অভাব হচ্ছে। চাইব গল্ফাররা সরাসরি আমার সঙ্গে দেখা করুন। যাতে সমস্যা মিটিয়ে ফেলা যায়।’’

শহরে গত সপ্তাহে ম্যাকলিয়ড রাসেল গল্ফ চলাকালীন আইওএ বকেয়া মেটায়নি বলে অভিযোগ করেন কলকাতার গল্ফার শিবশঙ্কর প্রসাদ চৌরাসিয়া। বলেছিলেন, রিওর প্রস্তুতি বাবদ তাঁকে ও অনির্বাণ লাহিড়ীকে তিরিশ লক্ষ টাকা দেবে বলেও পিছু হটছে আইওএ। বলছে, পনেরো লক্ষের বেশি দেওয়া যাবে না। আইওএ পাল্টা দাবি করে, অভিযোগ মিথ্যা। বিবৃতিতে বলা হয়, ‘‘তিরিশ লক্ষ টাকার কোনও প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়নি। চৌরাসিয়াকে শুধু কিটস, অ্যালাওয়েন্স বাবদ সাতচল্লিশ হাজার টাকা এবং বিদেশে খেলার বিমা বাবদ ১৬০০ টাকা দেওয়া হয়।’’

সোমবার শহরে সাংবাদিকদের ডেকে শিবশঙ্কর বললেন, ‘‘তিরিশ লক্ষ টাকা দেওয়া হবে, এই মর্মে কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রকের সঙ্গে চুক্তি সই করেছিলাম। আমার কাছে সব নথিই আছে। দু’দফায় সাড়ে পাঁচ লক্ষ পেয়েছি। সেই টাকা তা হলে আমাকে কী করে দেওয়া হল?’’ শিবশঙ্কর যে চুক্তির কথা বলেছেন, সে ব্যাপারে ক্রীড়ামন্ত্রী বলেন, ‘‘চুক্তি থাকলে সেটা কী দেখতে হবে। তবে খেলোয়াড়দের বকেয়া মেটানো হয় দফায় দফায়। এর পরেও ওঁদের সমস্যা হলে, আমার সঙ্গে সরাসরি দেখা করুন।’’

শিবশঙ্কর ও অনির্বাণ আগেই অভিযোগ করেছিলেন, তাঁদের যে সরঞ্জাম দেওয়া হয় তা ছিল নিম্ন মানের। গাড়ির বন্দোবস্তও ঠিক ছিল না।

কিন্তু প্রশ্ন উঠেছে, টাকা না পাওয়া নিয়ে এত দিন কেন চুপ ছিলেন শিবশঙ্কর? ‘‘প্রথমে ভেবেছিলাম মিটে যাবে। কিন্তু বিলের ফর্ম্যাট ঠিক নেই ইত্যাদি বলে বারবার ঘোরানো হচ্ছে। তাই বাধ্য হয়ে মুখ খুলতে হল।’’ শিবশঙ্করের বক্তব্য, অন্য খেলায় অলিম্পিক্সের যোগ্যতা অর্জনের নির্দিষ্ট টুর্নামেন্ট ও যোগ্যতামান থাকে। সেখানে গল্ফে যোগ্যতা বিশ্বর‌্যাঙ্কিং। বলেন, ‘‘সারা বছরে কুড়ি-পঁচিশটা আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট খেলেছি রিওর যোগ্যতা পেতে। সেটাও তো আমার অলিম্পিক্স প্রস্তুতি। অথচ অলিম্পিক্সে সিলেক্ট হওয়ার পর এক মাসের সময়টাকে প্রস্তুতি ধরা হচ্ছে। এক মাসে কি কেউ অলিম্পিক্স গল্ফার হয়ে উঠতে পারে?’’ সরঞ্জাম, প্রশিক্ষণ ও যাতায়াতের মতো জরুরি খরচের কথাই তিনি বলছেন, সেটাও জানিয়ে শিবশঙ্কর বলেন, ‘‘আপনারা অনির্বাণকে জিজ্ঞাসা করতে পারেন। ও ফ্লোরিডা থেকে রিও যাওয়ার বিমান ভাড়াটুকুও পায়নি।’’

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন