• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ক্যালিপসো সুর ফেরানোই লক্ষ্য, ঘোষণা পোলার্ডের

Kieron Pollard
পরীক্ষা: শনিবার অনুশীলনের ফাঁকে কায়রন পোলার্ড। ছবি: পিটিআই।

টি-টোয়েন্টিতে তাদের বড় শক্তি হিসেবে ধরা হলেও ওয়ান ডে ক্রিকেটে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ধারাবাহিকতা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। ওয়ান ডে ক্রিকেটে সুনাম ফিরিয়ে আনার লক্ষ্যে এ বার ভারতের বিরুদ্ধে নামছেন ক্যারিবিয়ান অধিনায়ক কায়রন পোলার্ড। 

ভারতের বিরুদ্ধে প্রথম ওয়ান ডে ম্যাচের আগে চেন্নাইয়ে শনিবার সাংবাদিক বৈঠকে এসে পোলার্ড বলেছেন, ‘‘আমরা একটা অভিযানে নামছি। ৫০ ওভারের ক্রিকেটে কী ভাবে খেলব, সে ব্যাপারে আমাদের পরিষ্কার একটা পরিকল্পনা আছে। আমরা একটা পদ্ধতির মধ্যে দিয়ে যাচ্ছি। একেবারে শুরুতেই হয়তো দারুণ কিছু ফল পাওয়া যাবে না। তবে আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে আমরা ভাল জয় পেয়েছি। এ বার ভারতের মতো শক্তিশালী দলের বিরুদ্ধে লড়াই।’’

ভারতের মাটিতেই আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে ৩-০ ফলে ওয়ান ডে সিরিজ জিতেছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। যে সিরিজ জয় তাঁদের আত্মবিশ্বাস বাড়াবে বলেই মনে করেন পোলার্ড। অধিনায়কের কথায়, ‘‘আমাদের এখন সামনে এগোতে হবে। আমাদের নিজস্ব একটা সমস্যাও আছে। যেটা ঠিক করার চেষ্টা করছি। মনে রাখতে হবে, একদিনে সাফল্য আসে না। জেতাটা সব সময়ই একটা ভাল অভ্যাস। কিন্তু মাথায় রাখতে হবে, কখনও কখনও ভাল খেলেও কাঙ্ক্ষিত ফলটা পাওয়া যায় না। আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে আমরা সেই কাঙ্ক্ষিত ফলটা পেয়েছি। সেই পারফরম্যান্স ধরে রাখতে চাই। সেই রাস্তাতেই এগোতে চাই।’’

আরও পড়ুন: কেন নিলামের আগেই দিল্লি ক্যাপিটালস নিল রাহানে-অশ্বিনকে? ফাঁস করলেন পন্টিং...

ওয়ান ডে সিরিজ থেকে এর আগে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছিলেন ক্রিস গেল। আন্দ্রে রাসেলকেও দলে ফেরাননি নির্বাচকেরা। ওয়েস্ট ইন্ডিজের এই দলের শক্তি অবশ্যই ব্যাটিং। শেই হোপ, শিমরন হেটমায়ার, নিকোলাস পুরান, পোলার্ড, রস্টন চেজকে নিয়ে ব্যাটিং লাইন যথেষ্ট শক্তিশালী। কিন্তু সমস্যা হতে পারে বোলিংয়ে। পেসারদের মধ্যে শেল্ডন কটরেল ছাড়া কেউ এখনও সে ভাবে ছাপ ফেলতে পারেননি। নজর থাকবে গত আইপিএলে নজর কাড়া ক্যারিবিয়ান পেসার আলজ়ারি জোসেফের উপরেও। 

আরও একটা ব্যাপার নিয়ে সমস্যায় পড়তে পারে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। মাঝের ওভারগুলো সামলানো নিয়ে। সেটা ব্যাটিংয়েই হোক কী বোলিংয়ে। পোলার্ডকে এই নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, ‘‘আমরা এই নিয়ে ভাবনা চিন্তা করছি। ৫০ ওভারের ক্রিকেটে ব্যাটিং হোক বা বোলিং, মাঝের ওভারগুলো ঠিক মতো কাজে লাগানোর ব্যাপারে কিছু পরিকল্পনা আছে। স্বাভাবিক ভাবেই সে সব পরিকল্পনার কথা আপনাদের জানাতে পারব না। সবাই জানে কাকে কী দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। এ বার মাঠে নেমে সেই দায়িত্ব ঠিক মতো পালন করতে হবে।’’

পোলার্ড এও জানান, ওয়ান ডে দলে রস্টন চেজের অন্তর্ভুক্তি ভারসাম্য বাড়াবে। তাঁর মন্তব্য, ‘‘রস্টন আসায় দলের ভারসাম্য বেড়ে যাবে। ও এমন এক জন ক্রিকেটার যে টেস্টে মিডল অর্ডারে ব্যাট করে। সেঞ্চুরিও আছে। আবার বলটাও করতে পারে। রস্টন দলে থাকা মানে অন্য এক জন বিশেষজ্ঞ ক্রিকেটারকে খেলানোর সুযোগ থাকবে আমাদের সামনে।’’ পোলার্ড পরিষ্কার জানিয়ে দিচ্ছেন, অফস্পিনার-অলরাউন্ডার রস্টন তাঁদের ছকের গুরুত্বপূর্ণ একটা অংশ। 

পোলার্ডের বিশ্বাস, ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটে প্রতিভার অভাব নেই। তিনি এও মনে করেন, ক্রিকেটাররা এখন যথেষ্ট পরিশ্রম করছেন নিজেদের আন্তর্জাতিক মঞ্চের জন্য তৈরি করতে। ‘‘সব কিছুই প্রস্তুতির উপরে নির্ভর করে। যারা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সাফল্য পেয়েছে, তারা সব সময়ই ক্রিকেটে ডুবে থাকে। আর যারা এই সাফল্যের খোঁজে লড়াই করছে, তারা এদেরই উদাহরণ করে এগোতে পারে,’’ বলেছেন পোলার্ড।

আগের দিন ওয়েস্ট ইন্ডিজের বোলিং কোচ রোডি এস্টউইক বলেছিলেন, হেটমায়ার বা পুরানের মতো ক্রিকেটার কোহালির থেকে প্রেরণা পেতে পারেন। ভারত অধিনায়ককে সামনে রেখে এগোতে পারেন। পোলার্ড এ দিন বলেন, ‘‘ওরা যে সেটা করছে না, তা নয়। কিন্তু সব সময় খেলার ফলে সব কিছু ধরা পড়ে না। এখন যে সব তরুণ ক্রিকেটার আমাদের হাতে আছে, তাদের নিয়ে আমরা স্বপ্ন দেখতেই পারি।’’

এক দিন আগে ডোয়েন ব্র্যাভো জানিয়েছেন, তিনি অবসর ভেঙে আবার আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে ফিরছেন। যা নিয়ে পোলার্ডের প্রতিক্রিয়া, ‘‘এক জন অধিনায়ক হিসেবে আমি খুশি যে, ব্র্যাভোর মতো ক্রিকেটারকে দলে পাওয়া যাবে।’’ 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন