অ্যাশলে ইয়ং বলছেন, তিনি যেন নতুন ভাবে স্যর আলেক্স ফার্গুসনকে ফিরে আসতে দেখছেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমে খবর, ম্যান ইউ বোর্ড অফ ডিরেক্টর্স সিদ্ধান্ত নিয়েই ফেলেছে,  তাঁর হাতেই পাকাপাকি ভাবে তুলে দেওয়া হবে দলের দায়িত্ব। ওয়ে গুন্নার সোলসারের হাত ধরে ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে বইছে খুশির হাওয়া।

আজ, মঙ্গলবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগে শেষ ষোলো পর্বে প্যারিস সাঁ জারমাঁর বিরুদ্ধে নতুন পরীক্ষায় নামছেন স্যর ফার্গির প্রাক্তন ছাত্র। নেমার দা সিলভা স্যান্টোস জুনিয়র এবং এদিনসন কাভানিহীন প্যারিস সাঁ জারমাঁর শক্তি এক ধাক্কায় কমে গিয়েছে অনেকখানি। যা দেখে ‘রেড ডেভিলস’ ভক্তরা জয়ের স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছেন।

কিন্তু ম্যান ইউ-র নতুন কারিগর সোলসার থাকছেন রীতিমতো সতর্ক। সোমবার সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি বলেছেন, ‘‘বিশ্বের অন্যতম সেরা ক্লাব দলের বিরুদ্ধে আমাদের খেলতে হবে। ফলে আমাদের আরও সংহত এবং পরিচ্ছন্ন ফুটবল খেলতে হবে।’’ বরং প্রতিপক্ষ শিবিরে নেমার এবং কাভানি না থাকায় কিছুটা হতাশই সোলসার। বলেছেন, ‘‘বিশ্বের সেরা ফুটবলারদের বিরুদ্ধে খেলার আলাদা একটা তৃপ্তি থাকে। আমি ব্রাজিলের রোনাল্ডো এবং লুইস ফিগো সমৃদ্ধ রিয়াল মাদ্রিদের বিরুদ্ধে খেলেছিলাম। এতে খেলার মান অনেক বেড়ে যায়। তবে এই প্যারিস সাঁ জারমাঁ নেমারদের ছাড়াও শক্তিশালী। ফলে আমাদের অনেক সাবধানে খেলতে হবে।’’

গত শনিবার ইপিএলে ফুলহ্যামের বিরুদ্ধে দুর্দান্ত গোল করেছিলেন অ্যান্থনি মার্সিয়াল। যা দেখে অনেকেই তাঁকে ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর সঙ্গে তুলনা করতে শুরু করেছেন। ম্যান ইউ ম্যানেজারও মনে করেন, রোনাল্ডোর স্তরে উন্নীত হওয়ার ক্ষমতা ধরেন ফরাসি স্ট্রাইকার। সোলসারের কথায়, ‘‘রোনাল্ডোর পর্যায়ে ওঠার ক্ষমতা রয়েছে মার্সিয়ালের। এবং তার জন্য কী করণীয় সেটাও ও খুব ভাল জানে। আমার বিশ্বাস, মার্সিয়াল ভবিষ্যতে এই দলের সেরা আকর্ষণ হবে।’’

তবে শুধু সোলসার নন। মঙ্গলবার ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে আরও এক জন নতুন পরীক্ষা দিতে চলেছেন। তিনি আঙ্খেল দি মারিয়া। পাঁচ বছর আগে তিনি এই ক্লাবে খেলতে এসেছিলেন। কিন্তু সেই সময়ের ম্যানেজার লুইস ফান হালের সঙ্গে তিক্ততার কারণে এক মরসুম পরেই চলে গিয়েছিলেন প্যারিসে। দি মারিয়া বলেছেন, ‘‘ক্লাবকর্তারাও পর্যাপ্ত সময় দেননি আমাকে।’’ তবে কি অপমানের জবাব দিতে চান তিনি? দি মারিয়া বলেছেন, ‘‘সেরা ফুটবল খেলতে চাই। এই ম্যাচের গুরুত্ব কী, সেটা খুব 

ভাল জানা আছে।’’

মঙ্গলবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগে: ম্যান ইউ বনাম প্যারিস সাঁ জারমাঁ (সোনি টেন টু, রাত ১.১৫)।