• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

প্রস্তুতি চলছে মীরাবাইয়ের, অনুশীলনে খুশি হকি কোচ

Mirabai Chanu
আশাবাদী: অলিম্পিক্স নিয়ে ভাবার সময় নেই মীরাবাইয়ের। ফাইল চিত্র

অলিম্পিক্স নিয়ে ভাবার সময় নেই তাঁর। অলিম্পিক্স আদৌ নির্ধারিত সময়ে হবে, না পিছিয়ে যাবে তা এখনও স্পষ্ট নয়।  তবে তিনি নিজের প্রস্তুতি সেরে রাখছেন। তিনি ভারতের ভারোত্তোলন তারকা মীরাবাই চানু। 

গোটা বিশ্বে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এবং মৃত্যু যে ভাবে বাড়ছে তাতে অলিম্পিক্স বাতিল হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ভারতে ইতিমধ্যেই সংক্রমণের সংখ্যা ৩০০ ছাড়িয়ে গিয়েছে। করোনার হানায় মারা গিয়েছেন চার জন। বিশ্ব জুড়ে করোনাভাইরাসে মৃত্যুর সংখ্যা ১৩ হাজারেরও বেশি। টোকিয়ো অলিম্পিক্স বাতিল করার পক্ষে ক্রমশ আওয়াজ তুলছেন বিভিন্ন দেশের অ্যাথলিটরা। গোটা বিশ্বে যখন ঘরবন্দি থাকার কথা বলা হচ্ছে, সেই অবস্থায় অ্যাথলিটরা কী ভাবে অলিম্পিক্সের জন্য প্রস্তুতি নেবেন? আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির (আইওসি) কাছে এই প্রশ্নই বারবার তুলছেন বহু অ্যাথলিটই।

অলিম্পিক্সের আগে প্রস্তুতি নেওয়ার মতো বেশ কয়েকটি প্রতিযোগিতাও বাতিল হয়ে গিয়েছে। শুধু এশিয়ান ভারোত্তোলন প্রতিযোগিতা অলিম্পিক্সের আগে মীরাবাইয়ের শেষ প্রস্তুতি প্রতিযোগিতা হতে পারে। তিনি বলেন, ‘‘এই প্রতিযোগিতার জন্য আমি ভাল করে প্রস্তুতি নিয়েছিলাম। প্রতিযোগিতাটা হবে কি না তা নিয়ে অনেক প্রশ্ন ছিল। অলিম্পিক্সের জন্য আমি ইতিমধ্যেই যোগ্যতা অর্জন করে ফেলেছি। তবে এশিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপেই কে, কোথায় দাঁড়িয়ে তার একটা ছবিটা অনেক পরিষ্কার হবে।’’

এ দিকে ভারতীয় হকি দলের কোচ গ্রাহাম রিডের বিশ্বাস টোকিয়ো অলিম্পিক্সের প্রস্তুতি নেওয়ার দিক থেকে এই মুহূর্তে তাঁর দল অনেকটাই এগিয়ে রয়েছে অন্যদের থেকে। করোনাভাইরাসের প্রভাব তাদের দলের প্রস্তুতির উপর পড়েনি। এটা ঠিক যে এফআইএইচ প্রো লিগের জন্য ভারতীয় দল জার্মানি এবং ইংল্যান্ডে যেতে পারছে না। এই প্রতিযোগিতা পিছিয়েও গিয়েছে। এই অবস্থায় রিড ইতিবাচক চিন্তাই করতে চান। তিনি হকি ইন্ডিয়া এবং স্পোর্টস অথরিটি অফ ইন্ডিয়া (সাই) যে পদক্ষেপ নিয়েছে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রুখতে, তার প্রশংসা করেন। ‘‘কর্তৃপক্ষ দ্রুত ব্যবস্থা নিয়েছে। সাই সেন্টারকে আলাদা করে দেওয়া হয়েছে খুব তাড়াতাড়ি। আমরা আলাদা আছি ঠিকই তবে রোজকার রুটিন মেনে সবকিছু করতে পারছি। সব ঠিকঠাকই এগোচ্ছে। আমরা ভাইরাসকে নিয়ন্ত্রণ করতে পারব না নিজেদের কাজটুকু করতে পারব। সেটাই করে যাচ্ছি,’’ বেঙ্গালুরুর সাই সাউথ সেন্টার থেকে সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে বলেন রিড।

বিশ্বের অন্য হকি দলের তুলনায় ভারতীয় দলের সুবিধে হল গোটা দল এক সঙ্গে রয়েছে। তাই প্র্যাক্টিসও করতে পারছেন সবাই নিয়মিত। রিড বলেন, ‘‘প্রতি মুহূর্তে পরিস্থিতি পাল্টে যাচ্ছে। তবে আমাদের সুবিধে হল নিয়মিত অনুশীলন করতে পারা। অন্য দেশগুলোর যেটা নেই।  অস্ট্রেলিয়ার খেলোয়াড়েরা পরিবারের সঙ্গে আছে। প্রস্তুতি নিচ্ছে পারথে। অর্জেন্টিনা দল একটা পরিকল্পনা অনুযায়ী চলছে। তবে ওরাও মনে হয়, একসঙ্গে প্রস্তুতি নিতে পারছে না আমাদের মতো।’’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন