চ্যাম্পিয়ন্স ট্র্ফির ফাইনালে পাকিস্তানের কাছে রেকর্ড রানের হারের পর ভারতীয় কোচের পদ থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন অনিল কুম্বলে। তাঁর জায়গা নিয়েছেন রবি শাস্ত্রী। কুম্বলের পদত্যাগ এবং রবির আগমনের মধ্যে পেরিয়ে গেছে এক মাস। কুম্বলের নেওয়া সিদ্ধান্ত যে একে বারে ঠিক ছিল তা বুধবার জানিয়ে দিলেন তাঁর প্রাক্তন সতীর্থ মহম্মদ আজহারুদ্দিন।

এ দিন আজহার বলেন, “অনিল একেবারেই ঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আত্মসম্মান নিয়ে সরে আসা সব সময়ই বাঞ্ছনীয়। আমি যতদূর অনিলকে জানি, ও আত্মসম্মান নিয়ে চলতে বরাবরই পছন্দ করে।”

আরও পড়ুন: অক্ষরকে উড়িয়ে নিয়ে গেলেও, ক্যান্ডি টেস্টে প্রথম এগারোয় কুলদীপই

কিছু দিন আগেই রবি শাস্ত্রী জানিয়েছিলেন বর্তমান ভারতীয় দল একের পর এক যা কৃতিত্ব অর্জন করে চলেছে তা গত ২০ বছরে জাতীয় দল অর্জন করেনি। রবির এই মতামতেরও তীব্র বিরোধিতা করতে শোনা যায় আজহারকে। তিনি বলেন, “এখনকার ভারতীয় দল এবং সেই সময়কার ভারতীয় দল সম্পূর্ণ আলাদা। এই ভাবে তুলনা করা কখনওই উচিত নয়। সেই সময়কার বোলাররা আলাদা ছিল, প্রতিপক্ষও আলাদা ছিল। ফলে দুই যুগের ক্রিকেটারদের মধ্যে তুলনা করা কঠিন।”

আরও পড়ুন: বিরাটের সঙ্গে তুলনা ‘না-পসন্দ’ বাবরের

এ দিন শ্রীসন্থের বিষয় নিজের মতামত জানান ভারতের প্রাক্তন অধিনায়ক। তিনি বলেন, “আমি মনে করি নিজের সময় সেরা ফাস্ট বোলারদের মধ্যে অন্যতম ছিল শ্রীসন্থ। আমি খুব কম বোলারকেই দেখেছি বল রিলিজের সময় সিমে ল্যান্ড করাতে। যে গুণটা শ্রীসন্থের ছিল। ওকে ঠিক মত পরিচালনা করা হয়নি। ওকে সঠিক ভাবে নিয়ন্ত্রণ করলে বড় ফাস্ট বোলার হত।”