কাগিসো রাবাডার আগুনে বোলিং কী ভাবে সামলাবেন বিরাট কোহালি, তা দেখার অপেক্ষায় ক্রিকেটপ্রেমীরা। দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক কুইন্টন ডি’ ককও সেই ব্যাট-বলের লড়াই দেখতে চান। দ্বিতীয় টি টোয়েন্টি ম্যাচের আগে প্রোটিয়া অধিনায়ক বলছেন, ‘‘ওরা দু’ জনেই দারুণ ক্রিকেটার। দু’জনের লড়াইটা দারুণ জমবে। দু’ক্রিকেটারই ইতিবাচক ক্রিকেট খেলে।’’

বিশ্বকাপে হতশ্রী পারফরম্যান্স করার পরে দক্ষিণ আফ্রিকার এটাই প্রথম সিরিজ। আসন্ন টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য পরীক্ষা নিরীক্ষার পথে হাঁটছে প্রায় সব দেশই। ভারতও দলে একাধিক পরিবর্তন আনছে। দক্ষিণ আফ্রিকাও নতুনদের সুযোগ দিচ্ছে। ডি’ ককের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে নেতৃত্বের ব্যাটন। ভারতের জলহাওয়ার সঙ্গে দ্রুত মানিয়ে নেওয়ার জন্য আগেই প্রোটিয়া ক্রিকেটাররা চলে এসেছেন এ দেশে।

ধর্মশালায় অনুষ্ঠিত প্রথম টি টোয়েন্টি ম্যাচ বৃষ্টির জন্য ধুয়ে গিয়েছে। মোহালির দ্বিতীয় টি টোয়েন্টির দিকে তাকিয়ে সবাই। প্রথম টি টোয়েন্টি ম্যাচটি পরিত্যক্ত হওয়ায় তিন ম্যাচের টি টোয়েন্টি সিরিজ এখন দু’ ম্যাচের হয়ে দাঁড়িয়েছে। কুইন্টন ডি কক বলছেন, ‘‘ধর্মশালার প্রথম টি টোয়েন্টি ম্যাচ না হওয়ায় সিরিজ এখন দু’ ম্যাচের হয়ে দাঁড়িয়েছে। আমরা ভারতের মাটিতে তিনটি টি টোয়েন্টি ম্যাচই খেলতে চেয়েছিলাম। কিন্তু, এখন আর কিছু করার নেই আমাদের।’’

আরও পড়ুনধোনির ভবিষ্যৎ ঠিক করবেন কোহালি-নির্বাচকরা, মত সৌরভের

আরও পড়ুন- মিসবার নির্দেশে পাক-ক্রিকেটারদের খাদ্য তালিকায় নিষিদ্ধ বিরিয়ানি

তিন ম্যাচের পরিবর্তে সিরিজ দু’ ম্যাচের হয়ে যাওয়াকে নেতিবাচক বলছেন ডি’ কক। তিনিই এই দলের অন্যতম সিনিয়র সদস্য। নেতৃত্বের বোঝা কি প্রভাব ফেলবে তাঁর ক্রিকেটে? দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক বলছেন, ‘‘নেতৃত্ব আমার খেলায় প্রভাব ফেলবে কিনা, তা নিয়ে এখনই চিন্তাভাবনা করছি না। অধিনায়কত্ব আমাকে আরও দায়িত্বশীল করে তুলবে বলেই মনে হয়।’’

মুম্বই ইন্ডিয়ান্স-এর হয়ে আইপিএল চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পরে ডি’ কক মন্তব্য করেছিলেন, তাঁর জীবনের সব চেয়ে বড় সাফল্য। এখনও তিনি সেই মন্তব্য থেকে সরে আসছেন না। দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক বলছেন, ‘‘মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে আইপিএল জেতা আমার কেরিয়ারের অন্যতম সেরা ঘটনা। আমরা যদি বিশ্বকাপ জিততাম, তা হলে সেটা হত আরও বড় একটা ঘটনা। আইপিএল, বিশ্বকাপ ফাইনালে নামতে চায় প্রতিটি ক্রিকেটার। আইপিএল জয় এখনও পর্যন্ত আমার জীবনের সব থেকে বড় সাফল্য।’’

আইপিএল জয় অবশ্য অতীত। নতুন সিরিজের দিকেই তাকিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকান অধিনায়ক কুইন্টন ডি’ কক।