• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ওয়াডার নতুন সুপারিশে আরও চার বছর নির্বাসনের মুখে রাশিয়া

WADA
ফাইল চিত্র।

সোমবারই বিস্ফোরক সুপারিশ করেছে বিশ্ব ডোপ বিরোধী সংস্থার (ওয়াডা) বিশেষ কমিটি। জানানো হয়েছে, যে ভাবে ভুয়ো ল্যাবরেটরির তথ্য তাদের কাছে পেশ করা হয়েছে তাতে আরও চার বছরের জন্য নির্বাসিত করা উচিত রাশিয়াকে। কেড়ে নেওয়া হোক আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতা আয়োজনের ক্ষমতাও।

স্বভাবতই সিঁদুরে মেঘ দেখছে রুশ ডোপ বিরোধী সংস্থা। মঙ্গলবার মস্কোতে সংবাদসংস্থাকে রাশিয়ার ডোপ বিরোধী সংস্থার প্রধান ইউরি গানাস জানিয়েছেন, ওয়াডার মনোভাব রুশ অ্যাথলিটদের ভবিষ্যতের উপরে ফেলে দিচ্ছে প্রশ্নচিহ্ন। ২০২০ ইউরো কাপের গ্রুপ পর্বের ম্যাচ হওয়ার কথা সেন্ট পিটার্সবুর্গে। সেটাও অনিশ্চিত হয়ে গেল। পাশাপাশি ২০২০ টোকিয়ো অলিম্পিক্স এবং তার পরে বেজিংয়ে ২০২২ শীতকালীন অলিম্পিক্সেও রুশ প্রতিযোগীদের অংশ নেওয়াও অনিশ্চিত হয়ে গেল।

হতাশ গানাস জানিয়েছেন, ওয়াডার নতুন নির্দেশ হয়তো ফের কার্যকরী হবে। বলেছেন, ‘‘পরিস্থিতি যে দিকে যাচ্ছে, তাতে আবার রাশিয়াকে নির্বাসনের কোপে পড়তে হলে সঙ্কট বাড়বে। দুর্ভাগ্যের বিষয় হল, আমাদের কিছু ক্রীড়া আধিকারিকের দুর্নীতির শিকার হতে হচ্ছে অ্যাথলিটদের।’’ ওয়াডার ডোপ পর্যালোচনা কমিটি তাদের রিপোর্টে জানিয়েছে, রাষ্ট্রীয় মদতে যে হারে রুশ অ্যাথলিটদের ডোপিং করানো হয়েছিল, তা বন্ধ করতে ব্যবস্থা নেয়নি রুশ ক্রীড়া দফতর। বরং যে তথ্য পাঠানো হয়েছে তা ভুয়ো। তাই নির্বাসনের মেয়াদ চার বছর বাড়ানো উচিত বলেই দাবি করেছে কমিটি।

টোকিয়ো অলিম্পিক্সে রাশিয়া অংশগ্রহণ করতে না পারলে পরিস্থিতি কী দাঁড়াবে, তা ভেবে শিউরে উঠেছেন গানাস। ৯ ডিসেম্বর প্যারিসে ডোপ পর্যালোচনা কমিটির রিপোর্ট নিয়ে বৈঠক হবে। সেখানে যদি এই নির্দেশ কার্যকর করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, তা হলে পরিণতি হবে ‘ভয়ঙ্কর’। গানাস বলেছেন, ‘‘অবস্থা যা দাঁড়িয়েছে, তাতে পরিকাঠামো আমূল পাল্টে ফেলতে হবে। আমি মনে করি এখনই প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের হস্তক্ষেপ প্রয়োজন। না হলে শুধু দেশের সম্মানই নয়, তার সঙ্গে রুশ খেলাধুলোর যে গৌরবময় ঐতিহ্য রয়েছে, তা-ও ধ্বংস হয়ে যাবে।’’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন