আবার অধিনায়কত্ব ফিরে পেলেন সর্দার সিংহ। দীর্ঘদিন ভারতীয় দলের অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করার পর হঠাৎই সরে যেতে হয়েছিল টিমের অন্দরের নানান জটিলতায়। কিন্তু সুলতান আজলান শাহ কাপের জন্য আবারও সেই দায়িত্ব ফিরে পেলেন ভারতীয় হকির এই মুহূর্তের অভিজ্ঞতম প্লেয়ার। দল থেকেও বাদ পড়েছিলেন সর্দার। ফিরলেন অধিনায়কত্ব নিয়ে।

২৭তম সুলতান আজলান শাহ ট্রফি মালয়েশিয়ায় শুরু হচ্ছে ৩ মার্চ থেকে। ভারতের র‌্যাঙ্কিং এই মুহূর্তে ছয়। এই টুর্নামেন্টে ভারত ছাড়াও খেলছে শীর্ষে থাকা অস্ট্রেলিয়া, দ্বিতীয় আর্জেন্তিনা, ইংল্যান্ড, আয়ারল্যান্ড ও আয়োজক দেশ মালয়েশিয়া। ফাইনাল হবে ১০ মার্চ। নতুন মুখকে জায়গা করে দিতে সর্দারকে বার বার দলের বাইরে যেতে হয়েছে। তাঁর অবর্তমানে দলের অধিনায়কত্বের দায়িত্ব সামলেছেন মনপ্রীত সিংহ।

দু’সপ্তাহ আগেই ২০২০ অলিম্পিকে খেলার ইচ্ছের কথা প্রকাশ করেছিলেন সর্দার। তার পরই তাঁকে অধিনায়কত্ব দিয়ে দলে ডেকে নেওয়া হল। কোচ মারিজিন বলেন, ‘‘সর্দার দলের লিডারদের মধ্যে একজন। মনপ্রীতের অবর্তমানে ওই সেরা পছন্দ। ও অভিজ্ঞ প্লেয়ার। এর আগে দুটো টুর্নামেন্টে খেলতে পারেনি। এটাই ওর সামনে সুযোগ নিজেকে আবার প্রমাণ করার।’’ রমনদীপ সিংহকে সহ-অধিনায়ক বেছে নেওয়া হয়েছে। 

আরও পড়ুন
খসে পড়ল পোশাক, তবু পারফর্ম্যান্স থামতে দিলেন না ‘তুষার-নর্তকী’

এ ছাড়া প্রথম সিনিয়র দলে জায়গা করে নিলেন মনদীপ মোর, সুমিত কুমার ও শিলানন্দ লাকরা। সুমিত সিনিয়র টিমের শিবিরে ছিলেন। মনদীপ ও লাকরাকে জুনিয়র দল থেকে ডেকে নেওয়া হয়। কোচের মতে, এটা ভারতীয় দলের জন্য বড় পরীক্ষার মঞ্চ। যেখানে অস্ট্রেলিয়া, আর্জেন্তিনার মতো শীর্ষস্থানে থাকা দলের সঙ্গে খেলে নিজেদের ক্ষমতা যাচাই করে নিতে পারবে বলেই মনে করেন কোচ।

ভারতীয় দল

গোলকিপার: সুরজ কারকেরা, কৃষাণ বি পাঠক।

ডিফেন্ডার: অমিত রুহিদাস, দীপসান তির্কে, বরুণ কুমার, সুরেন্দ্র কুমার, নিলম সঞ্জীপ এস, মনদীপ মোর।

মিডফিল্ডার: এসকে উথাপ্পা, সর্দার সিংহ, সুমিত, নীলকান্ত শর্মা, সিমরানজিৎ সিংহ।

ফরোয়ার্ড: রজন্ত সিংহ, রমনদীপ সিংহ, তলবিন্দর সিংহ, সুমিত কুমার (জুনিয়র), শিলানন্দ লাকরা।