ঘরের মাঠে আগামী বছর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জয়ের লক্ষ্যে প্রস্তুতি শুরু করে দিল অস্ট্রেলিয়া। শ্রীলঙ্কা এবং পাকিস্তানের বিরুদ্ধে আসন্ন সিরিজে তাই দলে ফেরানো হল স্টিভ স্মিথ এবং ডেভিড ওয়ার্নারকে। তিন বছর পরে টি-টোয়েন্টি দলে ফিরলেন স্মিথ। ২০১৯ অ্যাশেজের সেরা স্মিথ টেস্ট এবং ওয়ান ডে-তে দুরন্ত ধারাবাহিকতা দেখালেও টি-টোয়েন্টিতে তাঁর পারফরম্যান্সের পরিসংখ্যান ৩০ ম্যাচে ৪৩১ রান। গড় ২১.৫৫। 

স্মিথ ছাড়া ওপেনার ওয়ার্নার এবং পেসার মিচেল স্টার্ককেও দলে রাখা হয়েছে। বাদ পড়েছেন উসমান খোয়াজা। মঙ্গলবার অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় নির্বাচক ট্রেভর হন্‌স বলেন, ‘‘প্রায় এক বছর আছে ঘরের মাঠে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের। সেটা মাথায় রেখেই এই দল বেছে নেওয়া হয়েছে।’’  চলতি বছরের গোড়ার দিকে ভারতের বিরুদ্ধে সিরিজে দলে থাকা মার্কাস স্টয়নিস, শন মার্শ, ডার্সি শর্ট, ঝেই রিচার্ডসন, পিটার হ্যান্ডসকম্ব, নেথান কুল্টারনাইল এবং নেথান লায়নকেও বাদ দেওয়া হয়েছে। ঘরোয়া ক্রিকেটে ধারাবাহিকতা দেখানোর জন্য ফিরিয়ে আনা হয়েছে বিলি স্ট্যানলেক, বেন ম্যাকডারমট এবং কেন রিচার্ডসনকে। ঘোষিত দল: অ্যারন ফিঞ্চ, অ্যাশটন অ্যাগার, অ্যালেক্স ক্যারে, প্যাট কামিন্স, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, বেন ম্যাকডারমট, কেন রিচার্ডসন, স্টিভ স্মিথ, বিলি স্ট্যানলেক, মিচেল স্টার্ক, অ্যাশটন টার্নার, অ্যান্ড্রু টাই, ডেভিড ওয়ার্নার ও অ্যাডাম জাম্পা।

চোটে ছিটকে গেলেন মন্ধানা: ডান পায়ের আঙুলে চোটের জন্য দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ওয়ান ডে সিরিজে খেলতে পারবেন না স্মৃতি মন্ধানা। নেটে ব্যাট করার সময় এই চোট পান ভারতের মহিলা ক্রিকেট তারকা। তাঁর জায়গায় দলে রাখা হয়েছে ২০ বছর বয়সি সিম বোলিং অলরাউন্ডার পূজা বস্ত্রকরকে। ভারতের মহিলা দলের কোচ ডব্লিউ ভি রামন সাংবাদিকদের বলেছেন, ‘‘হাল্কা ফ্র্যাকচার রয়েছে স্মৃতির। ওকে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। কবে চোট সারিয়ে ফিরে আসতে পারবে এখনই বলা যাচ্ছে না। কারণ জায়গাটা ফুলে আছে। ফোলা কমলে এমআরআই স্ক্যান হবে।’’