• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

স্মিথরা ফিরলেও ভারতকে এগিয়ে রাখছেন স্টিভ

steve waugh
প্রাক্তন অস্ট্রেলীয় অধিনায়ক স্টিভ ওয়। 

 আগামী সপ্তাহ থেকে শুরু হয়ে যাচ্ছে ভারত বনাম অস্ট্রেলিয়ার তিন ম্যাচের ওয়ান ডে সিরিজ। যে দ্বৈরথ শুরুর আগে বিরাট কোহালির ভারতকে এগিয়ে রাখছেন প্রাক্তন অস্ট্রেলীয় অধিনায়ক স্টিভ ওয়। 

শনিবারই ভারতে এসে পৌঁছেছেন স্টিভ। তার পরে অস্ট্রেলিয়ার বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক বলেছেন, ‘‘দুটো দলই দারুণ ক্রিকেট খেলে। বিশ্বের সেরা দুটো দলের লড়াই দেখতে পাব আমরা। এ বার অস্ট্রেলিয়ায় ডেভিড ওয়ার্নার, স্টিভ স্মিথ আছে। মার্নাস লাবুশানের মতো ব্যাটসম্যান উঠে এসেছে। আগের বার ভারতের মাটি থেকে সিরিজ জিতে ফিরেছে অস্ট্রেলিয়া। যেটা বাড়তি আত্মবিশ্বাস জোগাবে। ওই সিরিজ জয়ের পর থেকে অ্যারন ফিঞ্চরা বিশ্বাস করতে শুরু করে, ওরা যে কোনও দলকে হারাতে পারে। কিন্তু এর পরেও বলব, ভারতের মাটিতে ভারতই এগিয়ে শুরু করবে।’’ 

ওয়ান ডে ক্রিকেটের অন্যতম সেরা দল হলেও ২০১৩ সালের চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির পর থেকে আর কোনও আইসিসি প্রতিযোগিতা জিততে পারেনি ভারত। যা নিয়ে স্টিভের প্রতিক্রিয়া, ‘‘বড় প্রতিযোগিতা জেতা সোজা কথা নয়। তবে ভারতের অবশ্যই সেই সব ট্রফি জেতার ক্ষমতা আছে। যে কোনও প্রতিযোগিতায় ফেভারিট দলের মধ্যে ভারত থাকবেই।’’ এর পরেই ভারতীয় সমর্থকদের উদ্দেশে স্টিভের বার্তা, ‘‘ভারতীয় ক্রিকেটপ্রেমীরা, আপনাদের ধৈর্য ধরতে হবে। ভারতের আবার বড় কোনও প্রতিযোগিতা জেতা স্রেফ সময়ের অপেক্ষা।’’ 

উমেশদের বিরুদ্ধে বড় রান তুলতে ব্যর্থ বাংলা

দেখা যাচ্ছে, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ হোক কী চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি বা ৫০ ওভারের বিশ্বকাপ— নক আউটে গিয়ে ছিটকে যাচ্ছে ভারত। মানসিক ভাবে কোনও সমস্যা হচ্ছে কী? স্টিভের জবাব, ‘‘না, মানসিক সমস্যা বলব না। এটা একটা খেলা। আমি আগেই বলেছি, বড় প্রতিযোগিতা জেতা সহজ কাজ নয়।’’ তার পরে মনে করিয়ে দিয়েছেন, ‘‘একটা সময় ৫০ ওভারের বিশ্বকাপে পরপর জিতেছিল অস্ট্রেলিয়া। এ বার আমরা পারিনি ঠিকই, কিন্তু একটা সময় অস্ট্রেলিয়ারই আধিপত্য ছিল।’’

তিন ম্যাচের ওয়ান ডে সিরিজের পরে ভারত বনাম অস্ট্রেলিয়ার দ্বিপাক্ষিক সিরিজ আবার এই বছরের শেষে। যখন দু’দেশের টেস্ট দ্বৈরথ শুরু হবে। যে সিরিজ নিয়ে এখন থেকেই উত্তেজনা ছড়াতে শুরু করেছে। গত বছর অস্ট্রেলিয়ার মাটি থেকে ঐতিহাসিক টেস্ট সিরিজ জিতেছিল কোহালির ভারত। যে দলে ওয়ার্নার বা স্মিথ ছিলেন না। আশা করা যাচ্ছে, ২০২০ সালের শেষ দিকে যে লড়াই হবে, তাতে এই দুই ক্রিকেটার থাকবেন। স্টিভ বলছেন, ‘‘অস্ট্রেলিয়া বনাম ভারত সব সময়ই একটা উপভোগ্য লড়াই। সবাই ওই সিরিজের দিকে তাকিয়ে।’’

দু’দলের তুলনা করে স্টিভ বলেছেন, ‘‘কোনও সন্দেহ নেই স্টিভ (স্মিথ) এবং ডেভিড (ওয়ার্নার) ফেরায় আমাদের দল শক্তিশালী হয়ে যাবে। কিন্তু ভারত এই মুহূর্তে বিশ্বের সেরা অলরাউন্ড দল। ওদের সব বিভাগেই উপযুক্ত ক্রিকেটার আছে। বিরাট কোহালিরা নিঃসন্দেহে ওই চ্যালেঞ্জ নিতে তৈরি থাকবে। আমার মনে হচ্ছে, ওটা এমন একটা সিরিজ হবে, যা লোকে অনেক, অনেক দিন মনে রাখবে।’’ ওই সফরে ভারতকে দিনরাতের টেস্ট খেলারও প্রস্তাব দেবে অস্ট্রেলিয়া। কিন্তু ভারত কি রাজি হবে? যা নিয়ে সিদ্ধান্ত হতে পারে আগামী সপ্তাহেই। স্টিভ বলছেন, ‘‘অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে দিনরাতের টেস্ট খেলাটা সব সময় একটা কঠিন চ্যালেঞ্জ। তবে বিরাট কোহালির মতো ক্রিকেটার এই চ্যালেঞ্জের মোকাবিলা করতে নিশ্চয়ই মুখিয়ে থাকবে।’’ 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন