জমে উঠেছে অ্যাশেজ সিরিজ। ১০০ বছরের বেশি সময় ধরে চলা ব্যাট-বলের দ্বৈরথ মুগ্ধ করেছে সৌরভ থেকে শোয়েব আখতারকে।

অ্যাশেজের দ্বিতীয় টেস্টে অভিষেক ম্যাচেই জোফ্রা আর্চারের গতি ঘায়েল করে স্টিভ স্মিথকে। আহত স্মিথ মাঠ ছাড়তে বাধ্য হন। এর পরেই নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে আর্চারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে  ‘রাওয়ালপিণ্ডি এক্সপ্রেস’। আহত স্মিথের প্রতি সহানুভূতির হাত না বাড়ানোর জন্যই সমালোচিত হন ২৪ বছর বয়সি স্পিড স্টার। এ বার শোয়েবের টুইটের জবাব দিলেন যুবরাজ সিংহ।

 

মাঠের বাইরে ভালো বন্ধু বলেই পরিচিত শোয়েব ও যুবি। হাসি ঠাট্টা করতে পছন্দ করতেন বাঁ হাতি অলরাউন্ডার। ড্রেসিং রুম জমিয়ে রাখতেন ‘পঞ্জাব দা পুত্তর’। নিজের স্বভাবচিত ভঙ্গিমায় শোয়েবের টুইটের জবাব দেন যুবরাজ। কিছু দিন আগে যুবরাজের অবসরের পরে তাঁকে শুভেচ্ছা জানিয়ে টুইট করেছিলেন শোয়েব। তিনি বলেছিলেন, ‘‘ ক্রিকেটে তোমার অবদান ভোলার নয়।

২০১১ সালে ভারতীয় দলের অন্যতম সদস্য ছিল যুবরাজ। স্টুয়ার্ট ব্রডকে এক ওভারে হাকানো ছ’টা ছক্কা এখনও সবার স্মৃতিতে উজ্জ্বল। ভারতের অন্যতম সেরা ম্যাচ উইনার হিসেবে তোমাকে সবাই মনে রাখবে।’’ মাঠে শোয়েবের গতি রাতের ঘুম কেড়ে নিত বিশ্বের তাবড় তাবড় ব্যাটসম্যানদের। সেই কথা মনে করিয়ে দিয়েই যুবি বলেন, ‘‘তুমি অবশ্যই বাউন্সারের পর সহানুভূতির হাত বাড়িয়ে দিতে। কিন্তু, পরের বলটাই যে আবার তুমি বাউন্সার দেবে, তার ইঙ্গিত দিয়ে রাখতে।’’

আরও পড়ুন: লর্ডসের মহারণের পর অ্যাশেজকেই টেস্টের সেরা বিজ্ঞাপন বলছেন সৌরভ

আরও পড়ুন: ভারতীয় ক্রিকেটের যুবরাজ