Advertisement
০১ মার্চ ২০২৪
US open

ইউএস ওপেনে আবার ‘তারকা’ পতন! কিরিয়সের কাছে হেরে ছিটকে গেলেন মেদভেদেভ

ইউএস ওপেনে শেষ ষোলোতে নিক কিরিয়সের কাছে হেরে প্রতিযোগিতা থেকে ছিটকে গেলেন পুরুষদের এক নম্বর টেনিস খেলোয়াড় দানিল মেদভেদেভ। খেলার ফল কিরিয়সের পক্ষে ৭-৬, ৩-৬, ৬-৩, ৬-২।

ইউএস ওপেন থেকে ছিটকে গিয়েছেন দানিল মেদভেদেভ।

ইউএস ওপেন থেকে ছিটকে গিয়েছেন দানিল মেদভেদেভ। —ফাইল চিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন
শেষ আপডেট: ০৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১১:১৬
Share: Save:

ইউএস ওপেনে আবার তারকা পতন। নিক কিরিয়সের কাছে হেরে প্রতিযোগিতা থেকে ছিটকে গেলেন দানিল মেদভেদেভ। শেষ ষোলোতে পুরুষদের এক নম্বর টেনিস খেলোয়াড় মেদভেদেভ চার সেটের লড়াইয়ে হার মানেন। খেলার ফল কিরিয়সের পক্ষে ৭-৬, ৩-৬, ৬-৩, ৬-২।

ইউএস ওপেনে নক্ষত্র পতন হয়েছিল শনিবার। তৃতীয় রাউন্ডে হেরে প্রতিযোগিতা থেকে বিদায় নিয়েছিলেন সেরিনা উইলিয়ামস। ইউএস ওপেনেই শেষ বার র‌্যাকেট হাতে নেমেছিলেন ২৩ গ্র্যান্ড স্ল্যামের মালকিন। চোখের জলে আর্থার অ্যাশ স্টেডিয়ামকে বিদায় জানান তিনি। এ বার খাতায়কলমে আরও এক বড় তারকা ছিটকে গেলেন প্রতিযোগিতা থেকে। সেরিনা, রজার ফেডেরার, রাফায়েল নাদাল, নোভাক জোকোভিচের মতো টেনিস তারকা পরবর্তী প্রজন্মে এখনও তৈরি হয়নি। যে হেতু মেদভেদেভ এখন এক নম্বর, তাঁর বিদায়কে সেই অর্থে নক্ষত্র পতন বলা যায়।

দু’মাস আগে উইম্বলডনের ফাইনালে উঠেছিলেন কিরিয়স। সেখানে নোভাক জোকোভিচের কাছে হেরেছিলেন তিনি। কিন্তু এ বার কোনও ভুল করলেন না। এই নিয়ে মোট পাঁচ বারের সাক্ষাতে চার বার মেদভেদেভকে হারালেন কিরিয়স।

ইউএস ওপেন থেকে ছিটকে যাওয়ায় পুরুষদের এক নম্বর স্থান থেকে নেমে যেতে পারেন মেদভেদেভ। তাঁর জায়গা নিতে পারেন রাফায়েল নাদাল, কার্লোস আরকারাজ ও ক্যাসপার রুডের মধ্যে এক জন।

কিরিয়সের বিরুদ্ধে গোটা ম্যাচে ১৯টি আনফোর্সড এরর করেছেন মেদভেদেভ। অন্য দিকে কিরিয়স দুর্দান্ত খেলেছেন। গোটা ম্যাচে ২১টি এস মেরেছেন অস্ট্রেলিয়ার টেনিস খেলোয়াড়। ৫৩টি উইনার মেরেছেন তিনি। বার বার নেটের কাছে রাশিয়ান খেলোয়াড়কে সমস্যায় ফেলেছেন কিরিয়স। নেটে ৬২ শতাংশ পয়েন্ট জিতেছেন তিনি। কিরিয়সের এই আক্রমণাত্মক টেনিসের কাছে হারতে হয়েছে মেদভেদেভকে।

প্রথম সেটেই মেদভেদেভের সার্ভিস ভেঙে দেন কিরিয়স। পিছিয়ে পড়েও হাল ছাড়েননি মেদভেদেভ। টাইব্রেকারে যায় সেট। সেখানেও একটা সময় ৩-৫ পিছিয়ে পড়েছিলেন। তার পরে টানা পয়েন্ট জিতে ৮-৭ এগিয়ে যান। ঠিক তখনই একটি ব্যাকহ্যান্ড ভলিতে মেদভেদেভকে হতভম্ব করে দেন কিরিয়স। শেষ পর্যন্ত ১৩-১১ ফলে টাইব্রেকার জিতে প্রথম সেট জিতে যান কিরিয়স।

দ্বিতীয় সেটে ম্যাচে ফেরেন মেদভেদেভ। কিরিয়স সার্ভিস করতে সমস্যায় পড়ছিলেন। প্রতিপক্ষের এই দুর্বলতা কাজে লাগান বিশ্বের এক নম্বর টেনিস খেলোয়াড়। দু’বার কিরিয়সের সার্ভিস ভেঙে ৬-৩ গেমে দ্বিতীয় সেট জিতে যান মেদভেদেভ।

দেখে মনে হচ্ছিল, তৃতীয় সেটে আরও চাপ বাড়াবেন মেদভেদেভ। কিন্তু হল তার উল্টো। বার বার নেটের কাছে এসে মেদভেদেভকে সমস্যায় ফেলতে শুরু করেন কিরিয়স। তাঁর এই আক্রমণাত্মক টেনিসে খেই হারান মেদভেদেভ। ভুল করতে শুরু করেন। ৩-৬ গেমে তৃতীয় সেট হারেন তিনি। চতুর্থ সেটেও সেই একই ছবি। এক বার ছন্দ পেয়ে গেলে কিরিয়সকে রোখা কতটা কঠিন, তা আরও এক বার দেখা গেল। মেদভেদেভকে দাঁড়ানোর সময় দিলেন না তিনি। ৬-২ গেমে চতুর্থ সেট জিতে ম্যাচ জিতে যান কিরিয়স।

ম্যাচ শেষে কিরিয়স বলেন, ‘‘শেষ পর্যন্ত আমার প্রতিভা দেখাতে পেরে খুব খুশি। আমি ভাল টেনিস খেলছিলাম না। ভাল টেনিস খেলতে আমার ২৭ বছর সময় লাগল। আমি সবার উপরে যেতে চাই। আশা করছি সেটা করতে পারব।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE