Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৭ জুলাই ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

দলে মেন্টরও, পরীক্ষার মুখে সাইরাজ, মনোজরা

এখনই বিদায়ঘণ্টা বাজানো হচ্ছে না বাংলার কোচ সাইরাজ বাহুতুলের।

নিজস্ব সংবাদদাতা
২৪ অক্টোবর ২০১৮ ০৪:১৩
Save
Something isn't right! Please refresh.
চাপে: দুই ম্যাচের পরে ঠিক হবে বাহুতুলের ভাগ্য। ফাইল চিত্র

চাপে: দুই ম্যাচের পরে ঠিক হবে বাহুতুলের ভাগ্য। ফাইল চিত্র

Popup Close

এখনই বিদায়ঘণ্টা বাজানো হচ্ছে না বাংলার কোচ সাইরাজ বাহুতুলের। তাঁকে আরও কয়েক দিন সময় দেওয়া হবে। মঙ্গলবার এই সিদ্ধান্ত নিলেন রাজ্য ক্রিকেট সংস্থা সিএবি-র প্রেসিডেন্ট সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। মেন্টর হিসেবে তাঁর মাথার ওপর বসিয়ে দেওয়া হল বাংলার রঞ্জিজয়ী দলের সফল সদস্য অরুণ লালকে। যাঁর হাতে আপাতত থাকবে বাংলা দলের মূল দায়িত্ব। এবং তাঁর অধীনেই থাকতে হবে সাইরাজকে।

আসন্ন রঞ্জি ট্রফির প্রথম দুই ম্যাচে (হিমাচল প্রদেশ ও মধ্যপ্রদেশের বিরুদ্ধে) দলের পারফরম্যান্স দেখার পরে কোচ সাইরাজ ও অধিনায়ক মনোজ তিওয়ারির ভবিষ্যৎ নির্ধারিত হবে বলে জানিয়ে দিলেন সৌরভ। গত মরসুমে যে বিজয় হাজারে ট্রফির ফাইনালিস্ট ছিল বাংলা, সেই প্রতিযোগিতায় এ বার নক আউট পর্বেই যোগ্যতা অর্জন করতে না পারায় উদ্বিগ্ন সৌরভ এ দিন বলেন, ‘‘গতবার অত ভাল ফল করার পরে এ বার এত খারাপ পারফরম্যান্স মেনে নেওয়া যায় না। ক্রিকেটারদেরও ‘এই মাঠে নামলাম, খেললাম, চলে এলাম’ মনোভাব চলবে না। এ বার ভাল ফল চাই আমাদের। ’’

দলের ম্যানেজার ও কয়েক জন সিনিয়র ক্রিকেটারের সঙ্গে কথা বলে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। তাঁরা কেউই নাকি কোচ সম্পর্কে ভাল রিপোর্ট দেননি। এর ভিত্তিতেই এই সিদ্ধান্ত। দলের সমস্যা নিয়ে কিন্তু সাইরাজ বা মনোজ কারও বক্তব্যই শোনা হয়নি। সৌরভ এ দিন এই কথা মেনেও নেন। বলেন, ‘‘না ওদের সঙ্গে আমার কোনও কথা হয়নি। ওরা আসুক। তার পরে কথা বলব।’’

Advertisement

কিন্তু দলের একাংশের কথা শুনে কেন এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হল, কেন সবাইকে নিয়ে আলোচনায় বসা হল না, এই প্রশ্নগুলোও উঠতে শুরু করেছে ক্রিকেট মহলে। দলের মধ্যে বিভাজন প্রশ্রয় পাচ্ছে, এই আশঙ্কাও অনেকে করছেন। সাইরাজ বুধবার দলের সঙ্গে যোগ দেবেন। মনোজ এখন দেওধর ট্রফিতে খেলতে দিল্লিতে রয়েছেন। তিনি ফিরে এসে দলের সঙ্গে হিমাচল প্রদেশের নদৌনে রওনা হবেন।

রঞ্জি ট্রফির মুখেই সিএবি এমন সিদ্ধান্ত নেওয়ায় ক্রিকেট মহল কিছুটা হলেও অবাক। বাংলার প্রাক্তন অধিনায়ক উৎপল চট্টোপাধ্যায়ের প্রশ্ন, ‘‘ধরা যাক, প্রথম দুই ম্যাচে বাংলা ভাল খেলল এবং তার পরের পাঁচটা বা তিনটে ম্যাচে ওরা ভাল খেলতে পারল না। তখন কি ফের কোচ-অধিনায়ককে নিয়ে টানাটানি শুরু হবে?’’

দলের মেন্টর অরুণ লাল এখন ইটালিতে। তিনি আগামী শুক্রবার ফিরে এসে দায়িত্ব নেবেন। আর বাংলা দল হিমাচল প্রদেশের নদৌনে রওনা হচ্ছে সোমবার। অরুণ লালও দলের সঙ্গে যাবেন সেখানে। পুরো রঞ্জি মরসুমই নাকি তিনি দলের সঙ্গে থাকবেন বলে জানান সিএবি প্রেসিডেন্ট।

বাংলার রঞ্জি ট্রফিজয়ী অধিনায়ক সম্বরণ বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘‘সিদ্ধান্তটা এই সময়ে হওয়ায় আমি কিছুটা অবাক। তবে এই সিদ্ধান্তে কাজ হলে, বাংলার পারফরম্যান্সে উন্নতি হলে তো ভালই।’’ আর উৎপলের আশঙ্কা, ‘‘প্রথম দুই ম্যাচে দল খারাপ খেললে যদি কোচ, ক্যাপ্টেন বদল হয়, তখন তো নতুন যারা আসবে, তারা হিমশিম খাবে। এর প্রভাব দলের খেলাতেও পড়বে। কোচকে পছন্দ না হলে তাকে রঞ্জি শুরুর আগেই সরিয়ে দিলে হত।’’ তবে অরুণ লালের মেন্টর হয়ে আসার সিদ্ধান্তকে অবশ্য স্বাগত জানিয়েছেন প্রাক্তনেরা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement