Advertisement
২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
India

WTC: ভারত নয়, বিশ্ব টেস্ট ফাইনালে এগিয়ে নিউজিল্যান্ড, কেন এমন মন্তব্য করলেন প্যাট কামিন্স

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে ১৪ টেস্টে সর্বাধিক ৭০ উইকেট নিয়েছেন কামিন্স। ১৩ টেস্টে ৬৭ উইকেট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন রবিচন্দ্রন অশ্বিন।

বিশ্ব টেস্ট ফাইনালে এগিয়ে নিউজিল্যান্ড মনে করেন প্যাট কামিন্স।

বিশ্ব টেস্ট ফাইনালে এগিয়ে নিউজিল্যান্ড মনে করেন প্যাট কামিন্স। ফাইল চিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৬ মে ২০২১ ২২:৪১
Share: Save:

ভারত নয় বরং বিশ্ব টেস্ট ফাইনালের মঞ্চে নিউজিল্যান্ড এগিয়ে রয়েছে। এমনটাই মনে করেন প্যাট কামিন্স। অস্ট্রেলিয়ার এই জোরে বোলারের দাবি কিউইদের জোরে বোলিংয়ে ভারসাম্য অনেক বেশি। তাছাড়া ইংল্যান্ডের স্যাঁতস্যাঁতে আবহাওয়াতে নিউজিল্যান্ডের সুইং বোলাররা বেশি সফল হবে বলে মনে করেন এই ডানহাতি জোরে বোলার।

এই বিষয়ে মতামত রাখতে গিয়ে নিজের ইউটিউব চ্যানেলে কামিন্স বলেন, ‘এই ফাইনালে যে দারুণ লড়াই হবে সেই ব্যাপারে আমার মনে বিন্দুমাত্র সন্দেহ নেই। তবে এই সময় ইংল্যান্ডে ব্যাপক বৃষ্টি হয়। ফলে আবাহাওয়ায় স্যাঁতস্যাঁতে ভাব থাকবে। সেই দিক থেকে বিচার করে কিন্তু নিউজিল্যান্ডের জেতার সম্ভাবনা বেশি। কারণ এমন অবস্থায় ওদের জোরে বোলাররা উইকেট থেকে বাড়তি সুইং আদায় করে নিতে পারবে’।

এক দিকে বিরাট কোহলীর কাছে মহম্মদ শামি, যশপ্রীত বুমরা, ইশান্ত শর্মা, উমেশ যাদব রয়েছেন। সিনিয়ররা চোট পেলে পরিস্থিতি সামাল দেওয়ার জন্য আছেন শার্দূল ঠাকুর ও মহম্মদ সিরাজ। অন্যদিকে কেন উইলিয়ামসনের কাছে ট্রেন্ট বোল্ট, টিম সাউদি, কাইল জেমিসন, কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম ও নিল ওয়াগনারের মতো জোরে বোলার। ফলে আসন্ন বিশ্ব টেস্ট ফাইনালে যে জোরে বোলারদের দাপট দেখা যাবে সেটা আগেভাগেই বোঝা যাচ্ছে।

বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে ১৪ টেস্টে সর্বাধিক ৭০ উইকেট নিয়েছেন কামিন্স। ১৩ টেস্টে ৬৭ উইকেট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন রবিচন্দ্রন অশ্বিন। আর তাই ফাইনাল খেলতে না পারার আফসোস কিন্তু তাঁর রয়েই গিয়েছে। সেই প্রসঙ্গে কামিন্স বলেন, “আমরা ৬টি সিরিজে এগিয়ে ছিলাম। কিন্তু ভারতের বিরুদ্ধে ঘরের মাঠে হার ও করোনার জন্য দক্ষিণ আফ্রিকা সফর বাতিল হওয়ার জন্য আমরা পিছিয়ে গেলাম। সেটা নিয়ে মন খারাপ হলেও ফাইনালের আগে দুটো দলকেই শুভেচ্ছা জানাই।”

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE