• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বৃহস্পতিবার কলকাতা ও দুই ২৪ পরগনায় বাস ধর্মঘটের ডাক

bus strike
ফাইল চিত্র।

জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির জেরে আগেই ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে ট্যাক্সি এবং ট্রাক ইউনিয়নগুলি। এ বার সেই পথে হাঁটতে চলেছে বাস সংগঠনগুলি

তারা অবশ্য রাজ্য সরকারের কোর্টে বল ঠেলেছে। বাস মালিকদের দাবি, ৬ জুনের মধ্যে ভাড়া বৃদ্ধি না হলে বৃহস্পতিবার, ৭ তারিখে ধর্মঘট হবে। কলকাতা, দক্ষিণ ও উত্তর ২৪ পরগনায় কোনও বাস চলবে না। ফলে আগামী বৃহস্পতিবার ভোগান্তির আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে পরিবহণ দফতর কী সিদ্ধান্ত নেয়, এখন সেটাই দেখার।

গত কয়েক বছর জ্বালানি তেল-সহ বাসের রক্ষণাবেক্ষণের খরচ অনেক বেড়েছে। কিন্তু ভাড়া বাড়েনি। এ বিষয়ে বহুবার সরকারের সঙ্গে আলোচনা হয়ছে। কিন্তু ভাড়া বাড়ানোর বিষয়ে কোনও সিদ্ধান্ত হয়নি।

জয়েন্ট কাউন্সিল অব বাস সিন্ডিকেটের তরফে তপন বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “কোনও উপায় নেই। ফলে বাধ্য হয়েই ধর্মঘটের পথে যেতে হচ্ছে। সরকারি বাসের ন্যূনতম ভাড়া ৭ টাকা। কিন্তু এখনও বেসরকারি বাসের ভাড়া ৬ টাকা।ডিজেল, পেট্রোলের দাম আকাশছোঁয়া। এই পরিস্থিতিতে কীভাবে বাস চলবে, সরকার ঠিক করে দিক। রাজ্য সরকারই সিদ্ধান্ত নিক।”

এমনিতেই রাস্তা থেকে বিভিন্ন রুটের বাস, মিনিবাস বসে গিয়েছে। তপনবাবুর দাবি, “ভাড়া বাড়ানো নিয়ে পরিবহণ দফতর তিন সদস্যের কমিটি তৈরি করে দিয়েছে। বহুবার পরিসংখ্যান দিয়ে হিসেব পেশ করেছি। তার পরেও পরিবহণ দফতর উদাসীন। ২০১৪ সালে শেষ ভাড়া বেড়েছিল। তখন ডিজেলের দাম ছিল ৬০ টাকার কাছাকাছি। এখন ৭০ ছাড়িয়ে যাচ্ছে। এছাড়াও বাসের বিমা খরচ বেড়েছে দ্বিগুণ। ধীরে ধীরে কোমায় চলে যাচ্ছে পরিবহণ শিল্প।”

আরও পড়ুন- রাস্তা আটকে বাস, বাড়ছে পথের ঝুঁকি​

আরও পড়ুন- ডায়মন্ড হারবার পর্যন্ত সরকারি বাস​

জ্বালানি তেলের অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে ইতিমধ্যেই ‘অল ইন্ডিয়া মোটরস কংগ্রেস’ দেশজড়ে ১৮ জুন ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে।এই সিদ্ধান্তকে সমর্থন জানিয়েছে ‘ওয়েস্ট বেঙ্গল ট্রাক অপারেটার্স ওয়েলফেয়ার’, ‘ফেডারেশন অব ওয়েস্ট বেঙ্গল ট্রাক অপারেটার্স অ্যাসোসিয়েশন’ সমেত ভারী পণ্যপরিবহণ সংগঠনগুলি। ট্যাক্সি চালকদের দু’টি সংগঠন ‘ওয়েস্ট বেঙ্গল ট্যাক্সি অপারেটার্স কোঅর্ডিনেশন কমিটি’, ‘ওয়েস্ট বেঙ্গল ট্যাক্সি ওয়ার্কস ফেডারেশন’-ও ১৮ জুনের ধর্মঘটে সামিল হচ্ছে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন