নারদ কাণ্ডের তদন্তে এ বার ক্যালিফোর্নিয়া পাড়ি দিচ্ছে সিবিআই গোয়েন্দাদের একটি দল।

নারদ-কর্তা ম্যাথু স্যামুয়েল সিবিআই-কে জানিয়েছেন, তিনি স্টিং অপারেশন করেছিলেন তিনটি আইফোনের সাহায্যে। তাঁর দেওয়া ভিডিও ফুটেজের ফরেন্সিক পরীক্ষা ইতিমধ্যেই করেছে সিবিআই। কিন্তু তার পরেও কিছু প্রশ্ন থেকে যাচ্ছে। তদন্তকারীদের বক্তব্য, এ জন্য আইফোন তিনটির ভিতরে থাকা ‘ভিডিও ডিকোডিং প্রসেসর’ নামক চিপটি পরীক্ষা করা প্রয়োজন। কিন্তু একমাত্র আইফোন প্রস্তুতকারক সংস্থা অ্যাপলের নিজস্ব প্রযুক্তির মাধ্যমেই এই চিপ পরীক্ষা করা সম্ভব। সেই কারণেই ফোন তিনটি নিয়ে মার্কিন মুলুকে অ্যাপলের সদর দফতর যাচ্ছেন সিবিআইয়ের তিন তদন্তকারী। সপ্তাহ দুয়েকের মধ্যেই তাঁরা আমেরিকায় যেতে পারেন বলে জানাচ্ছেন সিবিআইয়ের এক শীর্ষ কর্তা।

সিবিআই সূত্রে জানা গিয়েছে, সপ্তাহখানেক আগে গোয়েন্দা সংস্থাটির পক্ষ থেকে অ্যাপল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। কিন্তু অ্যাপল জানিয়ে দেয়, যা বলার বিদেশ মন্ত্রকের মাধ্যমেই বলতে হবে। তার পর বিদেশ মন্ত্রক অ্যাপলের সঙ্গে যোগাযোগ করে গোয়েন্দাদের যাওয়ার বিষয়টি ঠিক করে।

ইতিমধ্যে সোমবার ও মঙ্গলবার নিজাম প্যালেসে ম্যাথুকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে সিবিআই। ম্যাথুর দাবি, তৃণমূল সাংসদ কে ডি সিংহের নির্দেশেই স্টিং অপারেশন করেছিলেন তিনি। এ ব্যাপারে কেডি-র নির্দেশমূলক একাধিক ‘হোয়াটস অ্যাপ ম্যাসেজ’ তিনি তদন্তকারীদের হাতে দিয়েছেন বলে সিবিআই সূত্রের খবর। কিন্তু মাস চারেক আগে ইডি যখন কেডি-কে জেরা করে তখন তিনি এমন কোনও নির্দেশ দেওয়ার কথা অস্বীকার করেন। নারদ অপারেশনের জন্য খরচ হওয়া কোনও টাকাও তিনি দেননি বলে দাবি কেডি-র। যদিও মঙ্গলবার ম্যাথু সিবিআই-কে জানিয়েছেন, কেডি-র অর্থলগ্নি সংস্থার কাছ থেকে ভাউচারের মাধ্যমে টাকা তুলেই তিনি তৃণমূলের নেতা-মন্ত্রী ও পুলিশ কর্তাদের দিয়েছিলেন। সেই সব ভাউচারও সে দিন তিনি দিয়েছেন বলে সিবিআই সূত্রের খবর।