বনাঞ্চল এবং জনজাতি বাসিন্দাদের উচ্ছেদ করে ডেউচা পাঁচামি কয়লাখনি প্রকল্প করা যাবে না বলে দাবি উঠে এল গণ-কনভেনশনে। ‘আদিবাসী গাঁওতা’ ও ‘সেভ ডেমোক্র্যাসি’র যৌথ উদ্যোগে শনিবার দেওয়ানগঞ্জ গ্রামে কনভেনশনে ছিলেন আইনজীবী বিকাশ ভট্টাচার্য, সুনীল সোরেন, চঞ্চল চক্রবর্তী, ফিরদৌস শামিম, দীপালি ভট্টাচার্য, বাবুলাল টুডু প্রমুখ। বিকাশবাবু বলেন, ‘‘প্রকৃতিকে ভালবেসে তাকে রক্ষা করার কাজ সকলকে সঙ্গে নিয়েই করতে হবে। জোর করে এখানে প্রকল্প হলে লাভবান হবে ঠিকাদার, কয়লা মাফিয়া এবং শাসক দলের মুষ্টিমেয় নেতারা।’’ গণ-কনভেনশনে উপস্থিত হাজারখানেক মানুষ কয়লা খনির বিপক্ষে মত দেন। ‘সেভ ডেমোক্র্যাসি’র সম্পাদক চঞ্চলবাবু বলেন, ‘‘নন্দীগ্রামের মানুষ কেমিক্যাল হাবের বিরোধিতা করার পরে তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য বলেছিলেন, স্থানীয় মানুষ যখন চাইছেন না, কেমিক্যাল হাব হবে না। বর্তমান মুখ্যমন্ত্রীও ঘোষণা করুন, পাঁচামিতে খনি প্রকল্প হবে না।’’