গাঁধী সংকল্প যাত্রায় বিজেপি নেতার উদ্দাম নাচ নিয়ে ঘরে বাইরে সমালোচনা অব্যাহত। বিতর্ক এড়াতে রবিবার বিষয়টি নিয়ে কোনও মন্তব্য করতে রাজি হননি বিজেপি নেতারা।

বিজেপি সূত্রের খবর, গাঁধী সংকল্প যাত্রায় দলের নেতার এমন নাচে ক্ষুব্ধ খোদ দলেরই নীচুতলার অনেক নেতা-কর্মীই। গাঁধীজিকে নিয়ে পদযাত্রায় এমন নাচের জন্য বিরোধীরাও বিজেপি নেতাদের প্রকাশ্যে ক্ষমা চাওয়ার দাবি তুলেছেন। আর যে নেতা এই কাণ্ড ঘটিয়েছেন, তিনি অবশ্য যাত্রার সময় নাচের কথা মানেননি। তাঁর দাবি, শনিবার যাত্রা শুরুর আগেই ওই নাচটি নেচেছিলেন।

শুক্রবার নাগরাকাটা থেকে বিজেপির আলিপুরদুয়ার লোকসভা কেন্দ্রের গাঁধী সংকল্প যাত্রা শুরু হয়। আগামী বৃহস্পতিবার পর্যন্ত এই কেন্দ্রে দেড়শ কিলোমিটার পথ অতিক্রম করার কথা যাত্রার। সেই অনুযায়ী গত শনিবার ফালাকাটায় পৌঁছয় যাত্রা। কিন্তু ওইদিনই বিজেপির একাধিক নেতা-কর্মী ফেসবুকে সংকল্প যাত্রা দলের জেলা সহ সভাপতি রাজু ঘোষের উদ্দাম নাচের ভিডিয়ো আপলোড করেন। আনন্দবাজার পত্রিকা ওই ভিডিয়োর সত্যতা যাচাই করেনি। সোশ্যাল মিডিয়ায় ওই ভিডিয়ো ছড়িয়ে পড়তেই তা ঘিরে চলছে বিতর্ক।

বিজেপি সূত্রের খবর, জেলা সহ সভাপতির এমন কাণ্ডে খুশি নন দলের নীচুতলার অনেক নেতা-কর্মী। তাঁদের অভিযোগ, এমনিতে এনআরসি নিয়ে আতঙ্কিত প্রচুর মানুষ মুখ বিজেপি থেকে মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছেন। তার উপর গাঁধীকে নিয়ে পদযাত্রায় কোনও নেতা এমন আচরণ করলে দলের ভাবমুর্তি আরও নষ্ট হবে। যদিও বিষয়টিকে আমল দিতে রাজি নন সংকল্প যাত্রায় নাচ করা বিজেপির জেলা সহ সভাপতি রাজু ঘোষ। তাঁর কথায়, ‘‘যাঁরা সমালোচনা করছেন, তাঁরা আদৌ দলের কি না তা আগে দেখতে হবে। তাছাড়া আমি সংকল্প যাত্রায় নাচ করিনি। সংকল্প যাত্রা শুরু হওয়ার আগে নরেন্দ্র মোদীর জয়ে তৈরি হওয়া গানের সঙ্গে নাচ করেছি। এতে অন্যায়ের তো কিছু নেই।’’ যদিও ঘরে-বাইরে বিতর্ক রুখতে বিজেপির জেলা শীর্ষ নেতারা এ দিন আর বিষয়টি নিয়ে কোন মন্তব্য করতে চাননি। জেলা সভাপতি গঙ্গাপ্রসাদ শর্মা বলেন, ‘‘এই বিষয়ে আর কোনও মন্তব্য করব না।’’

তারপরও অবশ্য সমালোচনা থামেনি। তৃণমূল নেতা মোহন শর্মা বলেন, ‘‘গাঁধীর মতো ব্যক্তিত্বকে সামনে রেখে শনিবার বিজেপির সংকল্প যাত্রায় যা হয়েছে, তাতে বিজেপি জেলা নেতাদের প্রত্যেকের মানুষের কাছে ক্ষমা চাওয়া উচিত।’’ জেলা কংগ্রেস সভাপতি গজেন্দ্রনাথ বর্মণ বলেন, ‘‘সংকল্প যাত্রায় এমন নাচ করে গাঁধীকে অপমান করেছে বিজেপি। মানুষ তাদের এর যোগ্য জবাব দেবেন।’’