• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বিধায়ক খুনেরই মামলা দায়ের

BJP MLA
দেবেন-মৃত্যুতে খুনের অভিযোগ মামলা দায়ের করেছে সিআইডি। গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ

ময়নাতদন্তের রিপোর্ট উল্লেখ করে রাজ্য সরকার জানিয়েছিল, হেমতাবাদের বিধায়ক দেবেন্দ্রনাথ রায় সম্ভবত আত্মহত্যা করেছেন। কিন্তু দেবেন-মৃত্যুতে অন্যতম অভিযুক্ত নিলয় সিংহের বিরুদ্ধে বুধবার খুনের অভিযোগ মামলা দায়ের করেছে সিআইডি। ওই ঘটনায় দ্বিতীয় অভিযুক্ত মামুদ আলির (দেবেনের স্ত্রী এই নামই অভিযোগনামায় লিখেছেন) বিরুদ্ধেও খুনের মামলাই দায়ের করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে নিলয়কে রায়গঞ্জের মুখ্য বিচারবিভাগীয় আদালতে তোলে সিআইডি। বিচারক বিপাশা মণ্ডল তাঁকে ১০ দিনের সিআইডি হেফাজত দিয়েছেন। তবে বিচারক সিআইডি-কে দেবেনের বাড়িতে তল্লাশি চালানোর অনুমতি দেননি।

সরকারি আইনজীবী পিন্টু ঘোষ বলেন, ‘‘দেবেনবাবুর স্ত্রীর অভিযোগের ভিত্তিতে সিআইডি নিলয় ও মামুদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০২ ধারায় খুনের মামলা দায়ের করেছে।’’ 

সিআইডির তদন্তকারী এক কর্তা বলেন, ‘‘দেবেনবাবুর স্ত্রী চাঁদিমাদেবী পুলিশের কাছে খুনের অভিযোগ দায়ের করেছেন। তার ভিত্তিতেই নিলয় ও মামুদের বিরুদ্ধে খুনের মামলা দায়ের করা হয়েছে। পরে ময়নাতদন্ত ও তদন্তের তথ্য অনুযায়ী প্রয়োজনে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে দেবেনবাবুকে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগের ধারা প্রয়োগ করা হতে পারে। তবে তা সময়ই বলবে।’’ এ দিন আদালতে সিআইডি দাবি করে, দেবেনের কাছ থেকে প্রচুর টাকা নিয়েছিলেন নিলয়। সেই টাকার একটি বড় অংশ মাসুদের কাছেও গিয়েছে। ঘটনার তদন্তে সিআইডিকে সহযোগিতা করার আশ্বাস দিয়েছেন নিলয়। সিআইডির এক কর্তার দাবি, দেবেনের বাড়ি থেকে একটি মোবাইল ফোন, ব্যাঙ্কের দুটি পাসবই ও আর্থিক লেনদেনের একটি খাতা উদ্ধার হয়েছে। সেখানে ১৫ জনের নাম মিলেছে। আর্থিক লেনদেনে তাঁদের কী ভূমিকা ছিল, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। নিলয় অবশ্য এদিন আদালতে দাবি করেছেন, তাঁকে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানো হয়েছে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন