• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

পাশ বেশি আইএসসি, আইসিএসই পরীক্ষায়

pass outs
ছবি: পিটিআই।

অতিমারির আবহে এ বার নতুন নিয়মে আইসিএসই (দশম) এবং আইএসসি (দ্বাদশ) পরীক্ষার মূল্যায়ন সারা হয়েছে। এবং দু’টি পরীক্ষাতেই বেড়েছে পাশের হার।

করোনার প্রাদুর্ভাবে দশম ও দ্বাদশ, দুই ক্ষেত্রেই একাধিক পরীক্ষা স্থগিত হয়ে গিয়েছিল। সেই জন্য মূল্যায়নের নয়া পদ্ধতি বার করেছিল আইসিএসই বোর্ড। ওই প্রতিষ্ঠানের সচিব জেরি অ্যারাথুন শুক্রবার বলেন, ‘‘এ বার সব পরীক্ষা নেওয়া যায়নি। তাই আইসিএসই বা আইএসসি-তে কোনও মেধা-তালিকা প্রকাশ করা হয়নি।’’

আইসিএসই-তে পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল ২,০৭,৯০২। পাশ করেছে ২,০৬,৫২৫ জন। অনুত্তীর্ণ ১৩৭৭ জন। পাশের হার ৯৯.৩৪%। গত বার আইসিএসই পরীক্ষায় পাশের হার ছিল ৯৮.৫৪%। আইএসসি-তে এ বার পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল ৮৮,৪০৯। পাশ করেছেন ৮৫,৬১১ জন। অনুত্তীর্ণ ২৭৯৮ জন। পাশের হার ৯৬.৮৪%। গত বার পাশের হার ছিল ৯৬.৫২%। 

আরও পড়ুন: কন্টেনমেন্টে সেই বিধি-ভাঙাদের লুকোচুরি

আরও পড়ুন: কোভিড নিয়ে আতঙ্ক ছড়াচ্ছে কি বেসরকারি হাসপাতালেও

পশ্চিমবঙ্গে এ বছর আইসিএসই পরীক্ষা দিয়েছিল ৩৭,২৫৮ জন। পাশ করেছে ৩৬,৯২০ জন। অনুত্তীর্ণ ৩৩৮ জন। আইএসসি পরীক্ষা দেন ২৫,০৫৮ জন। ২৪,৪৫৩ জন পাশ করেছেন। অনুত্তীর্ণ ৬০৫ জন। 

আইসিএসই, আইএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রী টুইটে আইসিএসই, আইএসসি পরীক্ষার্থীদের উদ্দেশে লিখেছেন, ‘এ বার যে-কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে তোমরা পরীক্ষা দিয়েছ, সেখান থেকে শিক্ষা নিয়ে ভবিষ্যতে জীবনে আরও বেশি উন্নতি করবে।’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন