• নিজস্ব সংবাদদাতা 
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

সিইও দফতরে কমিশন প্রতিনিধি 

EC
ফাইল চিত্র।

বিভিন্ন রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচনে কোভিড-১৯ সঙ্গী হবে কি না, তা সময় বলবে। তবে কোভিড-১৯-এর কথা মাথায় রেখে বিভিন্ন পরিকল্পনা সাজাচ্ছে নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন সদন থেকে বিভিন্ন রাজ্যে নির্দেশও যাচ্ছে। সেই পরিস্থিতির মাঝে রাজ্যের মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিকের (সিইও) দফতরে এলেন কমিশনের প্রতিনিধি। তা নিয়ে অবশ্য মুখ খুলতে নারাজ সিইও দফতরের কর্তারা। 

বৃহস্পতিবার দুপুরে সিইও দফতরে আসেন কমিশনের ডাইরেক্টর-২ (আইটি) কমল আগরওয়াল। ১৯৫০ নামে কমিশনের একটি টোল ফ্রি নম্বর রয়েছে। যেখান থেকে ভোট, ভোটার পরিচয়পত্র (এপিক), ভোটার তালিকা সম্পর্কিত অনলাইন রেজিস্ট্রেশন ও অভিযোগ জানাতে পারেন আমজনতা। এমনকি, ভোটার সচেতনতা ও শিক্ষার ক্ষেত্রেও ভূমিকা রয়েছে ১৯৫০ নম্বরটির। তার হালহকিকত নিয়ে সিইও আরিজ আফতাব-সহ অন্য আধিকারিকদের সঙ্গে বিস্তারিত আলোচনা করেন কমিশন-প্রতিনিধি আগরওয়াল। যা পর্যালোচনা বৈঠক বলে দাবি করছে সূত্র। তাদের দাবি, এটি রুটিন বৈঠক। এর অন্য কোনও অর্থ খোঁজা ঠিক নয়। 

কয়েক দিন আগে বিভিন্ন রাজ্যের সিইওদের সঙ্গে অনলাইনে কোভিড-১৯ পর্বে নির্বাচন সংক্রান্ত খুঁটিনাটি নিয়ে বৈঠক করেন উপ নির্বাচন কমিশনারেরা। কোভিড-১৯ পর্বে যখন নানা বৈঠক অনলাইনে হচ্ছে, তখন এই ধরনের ‘রুটিন’ বৈঠকের জন্য দফতরে কমিশন প্রতিনিধির আসা তাৎপর্যপূর্ণ। সম্পূর্ণ লকডাউন পর্বে ১৯৫০-এর কলসেন্টার বন্ধ ছিল। তবে গত জুন থেকে সিইও দফতরে থাকা এই কল সেন্টার পূর্ণমাত্রায় কাজ করছে বলে খবর।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন