হুগলির তিনটি ভিন্ন জায়গায় মঙ্গলবার ফসলের ন্যায্য দামের দাবিতে সিপিআই (এমএল) লিবারেশনের কর্মী-সমর্থকেরা রাস্তায় আলু, পেঁয়াজ ফেলে অবরোধ করলেন। সর ক্ষেত্রেই পুলিশ গিয়ে তাঁদের সরিয়ে দেয়।

আন্দোলনকারীদের দাবি, চাষিরা ফসলের ন্যায্য দাম পাচ্ছেন না। রাজ্য সরকারের প্রতিশ্রুতিই সার। এরই প্রতিবাদে পান্ডুয়া, পোলবা ও বলাগড় ব্লকে মঙ্গলবার সকাল থেকে অবরোধ কর্মসূচি পালন করে সিপিআই(এমএল) লিবারেশন। সকাল ১১টা নাগাদ পান্ডুয়ার বৈঁচিতে জিটি রোডে আলু ফেলে অবরোধ শুরু হয়। কিছুক্ষণ পরে পুলিশ গিয়ে অবরোধকারীদের সরিয়ে দেয়। একই ভাবে বলাগড়ের মহীপালপুরেও অবরোধ হয়। দুপুর থেকে বিকেল পর্যন্ত একই দাবিতে পোলবার হারিটেও অবরোধ হয়। দলের রাজ্য নেতা সজল অধিকারী বলেন, ‘‘রাজ্য সরকার নানা প্রতিশ্রুতি দিচ্ছে। কিন্তু আলু চাষিরা রাজ্যের কোথাও ন্যায্য দাম পাচ্ছেন না। আলু, পেঁয়াজ, আনাজ ফলিয়ে চাষিরা পথে বসেছেন। দাম মিলছে না। সরকার ব্যবস্থা না-নিলে আমরা ফের আন্দোলনে নামব।’’ একই দাবিতে বলাগড়েরই খামারগাছিতে রাস্তায় পেঁয়াজ ফেলে অবরোধ করে বিজেপিও।

রাজ্যের কৃষি বিপণনমন্ত্রী তপন দাশগুপ্ত অভিযোগ মানতে চাননি। তাঁর দাবি, ‘‘রাজ্য সরকার চাষিদের পাশেই রয়েছেন। সহায়ক-মূল্যে ধান কেনা চলছে। এ বার আলুও কেনা হচ্ছে। অন্যান্য ফসলেও চাষিরা যাতে ন্যায্য দাম পান, তা সরকার দেখছে।’’