• প্রদীপ্তকান্তি ঘোষ
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

প্রেসিডেন্সির বদলে আলিপুর

Presidency Jail
প্রেসিডেন্সি কেন্দ্রীয় সংশোধনাগার।—ফাইল চিত্র।

Advertisement

তিনি আলিপুর কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারের বন্দিদের ‘কাছের লোক’ ছিলেন। গ্রেফতারের পর  সংশোধনাগার হাসপাতালের তৎকালীন অস্থায়ী চিকিৎসক অমিতাভ চৌধুরীকে আলিপুর থেকে দূরে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন কারা দফতরের পদস্থ কর্তারা। সূত্রের খবর, বৃহস্পতিবার দুপুরে বন্দিরা তাঁদের ‘কাছের লোক’ অমিতাভকে ফের কাছে পাওয়ার সুযোগ পেয়েছিলেন।  শেষমেশ অবশ্য তা হয়নি। প্রেসিডেন্সি কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারেই ফিরতে হয়েছে অমিতাভ।

সপ্তাহ দু’য়েক আগে রাতে আলিপুর কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারে মাদক, মোবাইল-সহ বিভিন্ন জিনিস পাচার করছিলেন অমিতাভ। সেই সময়ে হাতেনাতে ধরা পড়েন তিনি। গ্রেফতারের পর তাঁকে রাখা হয় প্রেসিডেন্সি কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারে। পুলিশি হেফাজতে ছিলেন অমিতাভ।

এ দিন বিকেলে আলিপুর আদালত থেকে অমিতাভকে নিয়ে যাওয়া হয় আলিপুর কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারে। সেখানের গেটে গিয়ে সম্বিত ফেরে দায়িত্বপ্রাপ্ত পুলিশকর্মীদের। তাঁরা বুঝতে পারেন, অমিতাভকে আলিপুর সংশোধনাগারের নিয়ে আসা ‘ভুল’ হয়েছে। কারণ, প্রেসিডেন্সি কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারে বন্দি রয়েছেন অমিতাভ। গেটে এলেও ভিতরে ঢোকার সৌভাগ্য হয়নি চিকিৎসকের।

কয়েক মুহুর্ত পরেই ফের অমিতাভকে গাড়িতে করে প্রেসিডেন্সি সংশোধনাগারে নিয়ে যাওয়া হয়। কারা দফতর সূত্রের খবর, আলিপুর আদালতের বেশির ভাগ বন্দিকেই আলিপুর কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারে নিয়ে যাওয়া হয়। কোনও কোনও বন্দির ক্ষেত্রে সংশোধনাগার বদলের জন্য বিশেষ নির্দেশ থাকে। তেমন ভাবেই অমিতাভকে প্রেসিডেন্সিতে রাখা হয়েছে।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন