এ সপ্তাহের শেষেই দক্ষিণবঙ্গে বর্ষার আগমন ঘটতে চলেছে। এমনই পূর্বাভাস আলিপুর আবহাওয়া দফতরের।

৮ জুনের সময় সীমা পেরিয়ে গিয়েছে অনেক আগেই। কবে এ রাজ্যে বর্ষার আগমন ঘটবে? তা নিয়ে মাথাব্যথার শেষ ছিল না রাজ্যবাসীর। অবশেষে স্বস্তির খবর দিল হাওয়া অফিস। আলিপুর আবহাওয়া দফতরের অধিকর্তা গণেশকুমার দাস বলেন, “পরিস্থিতি অনুকূল থাকলে শনি এবং রবিবারের মধ্যে দক্ষিণবঙ্গে বর্ষা ঢোকার কথা।”

গত কয়েক দিন ধরেই গরমের সঙ্গে আর্দ্রতাজনিত অস্বস্তির কারণে নাস্তানাবুদ হতে হচ্ছে দক্ষিণবঙ্গের মানুষকে। বুধবারও সকাল থেকে অস্বস্তি বজায় ছিল। সন্ধ্যার পর অবশেষে স্বস্তির বৃষ্টিতে প্রাণ জুড়ল কলকাতা-সহ বেশ কয়েকটি জেলার।

আরও পড়ুন: এক দেশ, এক নির্বাচন: কী করতে চাইছে মোদী সরকার?​

আরও পড়ুন: রাম আর আল্লাকে মিলিয়ে দিয়ে সংসদে নতুন ইনিংসের শুরুতেই সেঞ্চুরি অধীরের​

ইতিমধ্যে উত্তরবঙ্গ এবং সিকিমে মৌসুমী বায়ুর হাত ধরে বর্ষা ঢুকে পড়েছে। উত্তরের জেলাগুলিতে বৃষ্টিও ভাল হচ্ছে। সিকিমে বৃষ্টির জেরে তিস্তার জল ফুলে-ফেঁপে উঠছে। বিপদ সীমার উপর দিয়ে বইছে জল। আর দক্ষিণবঙ্গে এখনও খটেখটে ভাব। বিকেলের দিকে কিছু ক্ষণের জন্যে বজ্রবিদ্যুৎ সহ বৃষ্টি হলেও, সকালে ফের সেই গরম আর অস্বস্তি। আলিপুর আবহাওয়া দফতর সূত্রে খবর, এই গলদঘর্ম পরিস্থিতির খুব তাড়াতাড়ি অবসান হতে চলেছে। তবে তার জন্য আরও কয়েক দিনের অপেক্ষা।