একটানা গরমের পরে অবশেষে স্বস্তির আশা এ বার দক্ষিণবঙ্গে। সৌজন্যে বঙ্গোপসাগরে ঘনীভূত হতে চলা গভীর নিম্নচাপ। শনিবার থেকেই কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলায় বৃষ্টি শুরু হয়েছে। আশা জাগছে জোরালো বর্ষারও।

আলিপুর আবহাওয়া দফতরের তরফে জানানো হয়েছে, উত্তর বঙ্গোপসাগরে একটি নিম্নচাপ দানা বেঁধেছে। সেটি ক্রমশ গভীর নিম্নচাপের চেহারা নিতে চলেছে। তার জেরেই অন্তত আগামী দিন দুয়েক কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলায় বৃষ্টি হবে। সাগর উত্তাল থাকায় মৎস্যজীবীদের মাছ ধরতে যেতে নিষেধ করা হয়েছে। আজ, রবিবার ও কাল, সোমবার কলকাতা, দুই ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি এবং দুই মেদিনীপুরে ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

এ বছর দক্ষিণবঙ্গে বর্ষা ঢুকলেও তার শক্তি তেমন ছিল না। তার ফলে বৃষ্টি তো মেলেইনি, উল্টে গরমের জ্বালা সইতে হয়েছে গাঙ্গেয় বঙ্গের বাসিন্দাদের।

এ দিন আলিপুর আবহাওয়া দফতরের অধিকর্তা গণেশকুমার দাস বলেন, ‘‘গভীর নিম্নচাপের হাত ধরে বর্ষার শক্তিবৃদ্ধি হতে চলেছে।’’বস্তুত, দুর্বল বর্ষার জেরে দেশের বেশির ভাগ রাজ্যেই বর্ষার ঘাটতি রয়েছে। উত্তরবঙ্গে অতিবৃষ্টি হলেও দক্ষিণবঙ্গে সেই ঘাটতি বেশি। তাই সব মিলিয়ে এ রাজ্যেও প্রায় ৪৮ শতাংশ বর্ষার ঘাটতি রয়েছে বলে আবহাওয়া দফতর তরফে জানা গিয়েছে। এ বার গভীর নিম্নচাপের দৌলতে সেই ঘাটতি কতটা মেটে সেটাই দেখার।

এবার শুধু খবর পড়া নয়, খবর দেখাও। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের YouTube Channel - এ।