সৃজিত মুখোপাধ্যায় এবং প্রসেনজি়ৎ চট্টোপাধ্যায় বরাবরই হিট জুটি হিসেবে পরিচিত। কিন্তু যিশু সেনগুপ্তর সঙ্গে সৃজিতের জুটিও ক্রমশ জনপ্রিয় হচ্ছে। ও দিকে প্রসেনজিৎও কৌশিক গঙ্গোপাধ্যায়ের সঙ্গে ভালই ইনিংস জমাচ্ছেন। এ সব জানা খবর। আসল বিষয় হল, সৃজিতের ‘গুমনামী বাবা’র মুখ্য চরিত্রে প্রসেনজিতের থাকা নিয়ে নাকি প্রযোজনা সংস্থা এসভিএফ-এর আপত্তি আছে। তবে সৃজিতের ছবি মানে তিনিই শেষ কথা বলবেন। সৃজিত এ ছবিতে প্রসেনজিৎ ছাড়া আর কাউকে ওই চরিত্রে নিতে চান না। 

কিন্তু প্রযোজনা সংস্থার আপত্তির কারণ কী? সূত্র বলছে, আর্টিস্ট ফোরাম এবং প্রযোজকদের ঝামেলায় প্রসেনজিৎ পুরোভাগে ছিলেন। সেখানে অভিনেতার ভূমিকা নিয়ে আপত্তি ছিল প্রযোজকদের। এ-ও শোনা যাচ্ছে, প্রযোজকেরা চাইছিলেন, নতুন কোনও মুখ নিয়ে চমক দিতে। তবে সে সব কিছুই হচ্ছে না, সৃজিতের ছবিতে প্রসেনজিৎই প্রধান চরিত্র হচ্ছেন। 

এ দিকে প্রসেনজিৎ কিন্তু গত এক মাস ধরে চরিত্রের প্রস্তুতি নিতে শুরু করে দিয়েছেন। ‘গুমনামী বাবা’র জন্য তাঁকে ওজন বাড়াতে হচ্ছে। অভিনেতা বদলে ফেলেছেন পুরো ডায়েট রুটিন। বেশি করে কার্বোহাই়ড্রেট নিচ্ছেন। এর আগেও চরিত্রের প্রয়োজনে প্রসেনজিৎ নিজের চেহারা নিয়ে ভাঙচুর করেছেন। ‘জাতিস্মর’ করার সময়ে ওজন অনেকটা কমিয়েছিলেন। মাথার সামনের দিকে চুল কেটে ফেলেছিলেন।

তবে এ বার তাঁকে ওজন বাড়াতে হবে। সব কিছু খাওয়ার অনুমতিতে তো তাঁর খুশি হওয়ার কথা। যদিও প্রসেনজিৎ বলছেন, ‘‘আমি তো বেশি খেতে অভ্যস্তই নই। তাও যতটা পারছি খাওয়াদাওয়া করছি। ওজন বাড়ানোর মতো সময় এখনও হাতে আছে।’’ আপাতত প্রি-প্রোডাকশন চলছে ছবির। ফেব্রুয়ারি-মার্চ নাগাদ শুটিং শুরু হওয়ার কথা।