Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১ ই-পেপার

অভিনব উপায়ে সাইবার ক্যাফে মালিকের ৫০ হাজার টাকা গায়েব করল প্রতারক

নিজস্ব সংবাদদাতা
বর্ধমান ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ২১:০৭
এই সাইবার ক্যাফের মালিক প্রতারণার শিকার।

এই সাইবার ক্যাফের মালিক প্রতারণার শিকার।
নিজস্ব চিত্র।

‘টাকার ব্যাগ’ দেখিয়ে ৫০ হাজার টাকা ট্রান্সফার করিয়ে নিল এক প্রতারক। আর টাকার বদলে ব্যাগ থেকে বার হল পুরনো বাতিল জিনিসপত্র। মাথায় হাত ওই সাইবার ক্যাফে মালিকের। পুলিশে অভিযোগ জানানোর আগেই এটিএম থেকে তুলে নেওয়া হয় অন্তত ২০ হাজার টাকা। পূর্ব বর্ধমনের গুসকরা শহরের ঘটনা। প্রতারিতের নাম কুণাল চট্টোপাধ্যায়।

গুসকরা কলেজ মোড়ে কুণালের সাইবার ক্যাফে রয়েছে। তিনি জানান বুধবার দুপুর ২টা নাগাদ মধ্য তিরিশের এক ব্যক্তি তাঁর দোকানে আসেন। সঙ্গে ছিল একটি ব্যাগ মুখে মাস্ক ছিল। ক্যাফেতে এসে তিনি খুব ব্যস্ততা দেখাতে থাকেন। প্রতারক এসে বলেন তার গাড়ি আটকে আছে এখনই একটি অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠাতে হবে। কুণালের কাছে জানতে চান ১ লাখ টাকা ট্রান্সফার করা সম্ভব কি না। কুণাল তাঁকে জানান, ৭০-৭৫ হাজার টাকার বেশি পাঠানো সম্ভব নয়। তাতেই রাজি হয়ে যান ওই ব্যক্তি।

কুণাল বলেন, “ওই ব্যক্তি আমার কাছে আসার পর ব্যাগটি টেবিলের তলায় রেখে বলেন এতে টাকা আছে। তারপর তাড়াহুড়ো করতে থাকেন। আমি প্রথম দফায় ২৫ হাজার টাকা ট্রান্সফার করি। তারপর দ্বিতীয় দফায় আরও ২৫ হাজার টাকা ট্রান্সফার করতেই ওই ব্যক্তির ফোন বাজতে শুরু করে। ফোন কানে দিয়ে উঠে দরজার কাছে যান। তখন দোকানে আরও খরিদ্দার ছিল। তাই নজরে পড়েনি। অল্প কিছুক্ষণ পরেই খেয়াল করি তিনি পালিয়ে গিয়েছেন। ব্যাগ পড়ে রয়েছে। ব্যাগ খুলে দেখি তার মধ্যে রয়েছে ১ আঁটি বিচালি ও একটি ছেঁড়া জ্যাকেট।”

Advertisement

প্রতারিত হয়েছেন বুঝতে পেরেই কুণাল তড়িঘড়ি ব্যাঙ্কের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। গুসকরা পুলিশ ফাঁড়িতে অভিযোগ জানান। ব্যাঙ্ক সূত্রে জানা যায় যে অ্যাকাউন্টে ৫০ হাজার টাকা পাঠিয়েছিলেন সেটি মঙ্গলকোট থানার শীতলগ্রামের সুমন হাজরা নামে কোনও ব্যক্তির। যদিও ৫০ হাজার টাকার মধ্যে ততক্ষণে ২০ হাজার টাকা এটিএম থেকে তুলে নিয়েছেন প্রতারকরা। তদন্ত করছে পুলিশ।

আরও পড়ুন

More from My Kolkata
Advertisement