Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৫ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

স্কুলের শিরীষ গাছের ‘রহস্য মৃত্যু’, প্রাথমিকের প্রধানের বিরুদ্ধে থানায় এ বার হাই স্কুল

নিজস্ব সংবাদদাতা
বর্ধমান ২৬ জুন ২০২১ ০১:৩১


নিজস্ব চিত্র।

শিরীষ গাছের রহস্যজনক মৃত্যু নিয়ে নয়া বিতর্ক বর্ধমান মিউনিসিপ্যাল স্কুলে। এ বার প্রাথমিকের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধেই থানায় অভিযোগ দায়ের করলেন হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক।

বর্ধমান শহরের টাউন হলের উল্টোদিকেই রয়েছে মিউনিসিপ্যাল স্কুল। এটি শহরের সবচেয়ে নামী স্কুল। এই স্কুলের হাই স্কুলের সঙ্গেই চলে প্রাথমিক বিদ্যালয়। ঘটনার সূত্রপাত বৃহস্পতিবার। বর্ধমান মিউনিসিপ্যাল হাইস্কুলের একটি প্রাচীন শিরীষ গাছের মৃত্যু নিয়ে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বিশ্বজিৎ পাল বর্ধমান থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। তিনি দাবি করেন, গাছটিকে কে বা কারা মেরে ফেলেছে। এই বিষয়ে উপযুক্ত তদন্তের দাবিও করেন তিনি। অভিযোগ পেয়ে পুলিশও স্কুলে এসে তদন্ত শুরু করে।

তার পর শুক্রবার বর্ধমান মিউনিসিপ্যাল হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক শম্ভুনাথ চক্রবর্তী পাল্টা প্রাথমিক বিভাগের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করলেন। শম্ভুনাথবাবু দাবি করেন, ‘‘প্রাথমিক বিভাগের কোনও সম্পত্তি নেই স্কুলে। প্রায় সমস্তটাই হাইস্কুলের। তাই যদি কোনও গাছের ক্ষতি হয়ে থাকে, সেটা উনি আমাদের জানাতে পারতেন। তা না করে বিশ্বজিৎবাবু নিজের এক্তিয়ারের বাইরে গিয়ে থানায় অভিযোগ করেছেন। একই সঙ্গে স্কুলে পুলিশ ডেকে সুনাম নষ্ট করেছেন। গাছের মৃত্যু নিয়ে কোনও সংশয় থাকলে, সেটা বনদপ্তরে জানানো যেত। পুলিশে জানানোর কোনও দরকার ছিল না।’’

Advertisement

শুধু প্রধান শিক্ষক নয়, এই বিষয়ে সরব হয়েছেন প্রাক্তনীরাও। নেটমাধ্যমে স্কুলের কিছু প্রাক্তন ছাত্র প্রাথমিক বিভাগের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে তোপ দেগেছেন। তাঁদের মতে, গাছটির স্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে। এবং স্কুলে পুলিশ ডাকা ঠিক হয়নি। পুলিশ সূত্র জানিয়েছে, দু’টি অভিযোগই বনদফতরকে পাঠানো হয়েছে।



Tags:

আরও পড়ুন

Advertisement