×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৬ মে ২০২১ ই-পেপার

মোদীর নেতাজি কমিটিতে সৌরভ, মমতা-বুদ্ধদেব, মিঠুন-কাজল

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০৯ জানুয়ারি ২০২১ ১৪:১৯
গ্রাফিক: তিয়াসা দাস।

গ্রাফিক: তিয়াসা দাস।

আগামী ২৩ জানুয়ারি থেকেই সুভাষচন্দ্র বসুর ১২৫ তম জন্মবার্ষিকী উদ্‌যাপন শুরু করতে চায় কেন্দ্রীয় সরকার। এর জন্য একটি উচ্চপর্যায়ের কমিটি গঠন হবে বলে আগেই টুইট করে জানিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এ বার সেই কমিটি গঠন হল। মোদীর সেই কমিটিতে সদস্য হিসেবে রয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য এবং প্রাক্তন ক্রিকেটার ও বর্তমান বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। কমিটিতে রয়েছেন বলিউডের দুই বাঙালি তারকা মিঠুন চক্রবর্তী এবং কাজলও।

কেন্দ্রীয় সংস্কৃতি মন্ত্রকের তরফে শুক্রবার একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে ওই কমিটির কথা জানানো হয়েছে। কমিটির চেয়ারম্যান প্রধানমন্ত্রী। সঙ্গে রয়েছেন ৮৪ জন সদস্য। তাঁদের মধ্যে রয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ, প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিংহ, অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ-সহ ৭ জন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। সেখানেও বাংলার দুই কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয় ও দেবশ্রী চৌধুরীর নাম রয়েছে।

এই ধরনের কমিটিতে কাউকে নিতে গেলে আগে থেকে তাঁদের অনুমোদন নেওয়াটাই দস্তুর। এ ক্ষেত্রে মমতা, বুদ্ধদেব, সৌরভ ইত্যাদিদের কাছে এমন কোনও লিখিত বা মৌখিক অনুমোদন নেওয়া হয়েছে কি না জানা যাচ্ছে না। ওয়াকিবহাল মহলের বক্তব্য, হতে পারে নেতাজিকে শ্রদ্ধা জানানো সংক্রান্ত কমিটিতে থাকতে কেউ আপত্তি করবেন না ধরে নিয়েই এঁদের নাম অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। পরে চিঠি দিয়ে আনুষ্ঠানিক ভাবে তাঁদের বিষয়টি জানানো হবে। আবার অনেকের মতে, হতে পারে এঁদের সঙ্গে কেন্দ্রীয় সরকারের কোনও প্রতিনিধি আগে থেকে কথা বলে রেখেছেন। তবে যাই-ই হয়ে থাকুক, তা জানানো হয়নি। সরাসরি কমিটির সদস্যদের নাম ঘোষণা করে দেওয়া হয়েছে।

Advertisement

আরও পড়ুন: আব্বাস সিদ্দিকিকে জবাব দিতে দুই কৌশলে ঘুঁটি সাজাচ্ছে তৃণমূল

আরও পড়ুন: একই সঙ্গে তিন বিক্ষোভ, বিশ্বভারতী চত্বরে উত্তেজনা

প্রত্যাশিত ভাবেই মোদীকে নিয়ে ৮৫ জনের কমিটির সদস্যদের বড় অংশই বাঙালি। মমতা, বুদ্ধদেব ছাড়াও রয়েছেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি তথা সাংসদ এবং লোকসভায় কংগ্রেসের দলনেতা অধীররঞ্জন চৌধুরী। জায়গা পেয়েছেন দিলীপ ঘোষ-সহ বাংলার বিজেপি সাংসদরাও। সদ্য তৃণমূল ছেড়ে বিজেপি-তে যোগ দেওয়া বর্ধমান পূর্বের সাংসদ সুনীল মণ্ডলও রয়েছেন কমিটিতে। জায়গা পেয়েছেন শুভেন্দু অধিকারীও। বিজেপি-তে যোগ দেওয়ার আগে বিধায়ক পদ ছেড়ে দিলেও বিজ্ঞপ্তিতে শুভেন্দুকে রাজ্যের বিধায়ক হিসেবেই উল্লেখ করা হয়েছে। যা থেকে অনুমান করা যায়, কমিটির সদস্যদের নাম খুব সাম্প্রতিক অতীতে ঠিক করা হয়নি।

কমিটির যে তালিকা প্রকাশিত হয়েছে, তাতে একটা বিষয় পরিষ্কার যে, সমাজের সব ক্ষেত্রের বিশিষ্টদেরই সেখানে রাখা হয়েছে। সেই হিসেবে প্রাক্তন সৌরভের সঙ্গেই রয়েছেন ভারতীয় ফুটবল দলের প্রাক্তন অধিনায়ক সুব্রত ভট্টাচার্যও। সঙ্গীতশিল্পী, সুরকার এবং গায়ক এ আর রহমানের সঙ্গে রয়েছেন বলিউডের মিঠুন, কাজল। কমিটিতে চন্দ্রকুমার বসু-সহ নেতাজির পরিবারের কয়েকজন সদস্য এবং আইএনএ বাহিনীর স্বাধীনতাসংগ্রামীদেরও প্রতিনিধিত্ব রয়েছে।

ওড়িশার কটকে জন্ম হয়েছিল সুভাষচন্দ্রের। সেই হিসেবে ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়কও রয়েছেন কমিটিতে। রাখা হয়েছে উত্তর-পূর্বের বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীকেও। তবে নেতাজির কর্মভূমি বাংলার প্রতিনিধিত্বই বেশি। কমিটিতে রয়েছেন তৃণমূল সাংসদ সুদীপ বন্দ্যপাধ্যায়, অভিনেতা কৌশিক গঙ্গোপাধ্যায়, নেতাজি গবেষক পূরবী রায় প্রমুখ।

Advertisement